অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শুরু হলো বিশ্বকাপ ক্রিকেট ২০১৯

fec-image

গেলো ২০১২ সালের লন্ডন অলিম্পিকের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানও আয়োজন করা হয়েছিল বাকিংহ্যাম প্যালেসের সামনে, দ্য মলে। দ্বাদশ ওয়ানডে বিশ্বকাপেরও উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হলো সেখানেই। বুধবার (২৯ মে) খুব বেশি আয়োজন না থাকলেও ছিল ক্রিকেটের উন্মাদনা ছড়িয়ে দেওয়ার মতো অনেক কিছু। ছোট আনুষ্ঠানিকতা দিয়েই আগামী ৪৫ দিনের বিশ্বকাপের মহারণ শুরু হয়েছে।

বাংলাদেশ সময় রাত ১০টায় শুরু হয় অনুষ্ঠানটি। স্কাই স্পোর্টস, স্টার স্পোর্টস সহ বিশ্বকাপের সম্প্রচারকারী সব টিভি চ্যানেলে সেটি দেখা যায়। অনলাইনে র‌্যাবিটহোল,হটস্টারসহ আইসিসির অনুমোদিত বিভিন্ন অনলাইন প্ল্যাটফর্মে তা দেখা যায়।

বিশ্বকাপ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে নাচে–গানে মেতে উঠে লন্ডনের দ্য মল। বিশ্বকাপ ট্রফি হাতে মঞ্চে ওঠেন অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক মাইকেল ক্লার্ক। এক ঘণ্টার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের প্রতিনিধি ছিলেন স্পিনার আব্দুর রাজ্জাক ও অভিনেত্রী জয়া আহসান। রাজ্জাক আইসিসির বাংলাদেশ প্রতিনিধি হিসেবে কলাম লিখবেন।

এবারের বিশ্বকাপে অংশ নিচ্ছে দশ দল। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ১০ দলের প্রতিনিধি হয়ে আসা অতিথিদের নিয়ে ‘স্ট্রিট ক্রিকেট’ আয়োজন করা হয়।

বিজ্ঞাপন
এক মিনিটে কোন দল কত রান নিতে পারে—এমন ব্যতিক্রম আয়োজনে ছিল ক্রিকেট চ্যালেঞ্জ। জয়া আহসান এবং রাজ্জাক সেই প্রতিযোগিতায় অংশ নেন। এক মিনিটের তারা বাংলাদেশের স্কোরবোর্ডে তোলেন ২২ রান। ৭৪ রান করে এই চ্যালেঞ্জে জিতেছে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। সেখানে অংশ নিয়েছিলেন কেভিন পিটারসেন ও ক্রিস হিউজ।

বিশ্বকাপের অফিসিয়াল থিম সং ‘স্টান্ড বাই’—এর মাধ্যমে শেষ হয় এক ঘণ্টার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। উদ্বোধনী ম্যাচের জন্য প্রস্তুত দক্ষিণ আফ্রিকা এবং স্বাগতিক ইংল্যান্ড। এখন অপেক্ষা মাঠের লড়াইয়ের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × 4 =

আরও পড়ুন