কাউখালীতে শিশুসদনের পরিত্যাক্ত বাথরুম থেকে বৌদ্ধ ভিক্ষুর লাশ উদ্ধার

fec-image

কাউখালীর বেতবুনিয়া থেকে পঁয়ষট্টি বছর বয়সী এক বৌদ্ধ ভিক্ষুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এলাকার মানুষের সংবাদের ভিত্তিতে রবিার বিকাল ৪টায় উকাইন্দা শিশুসদনের পরিত্যাক্ত বাথরুম থেকে গলিত অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

কাউখালী থানার ওসি মোঃ শহীদ উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। ময়না তদন্তের জন্য লাশ রাঙ্গামাটি মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

বেতবুনিয়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ সুব্রত কুমার সরকার জানান, বেতবুনিয়ার গজালিয়া এলাকার বাসিন্দা মৃত চাইঞোরী মারমার ছেলে অংহ্লাপ্রু মারমা (৬৫) দীর্ঘদিন যাবৎ বেতবুনিয়া উকাইন্দা শিশুসদনের বৌদ্ধ ভিক্ষু হিসেবে নিয়োজিত ছিলো। কিন্তু গত এক সপ্তাহ যাবৎ ঔ শিশুসদন থেকে লাপাত্তা হয়ে যান এ ভিক্ষু।

তিনি জানান, শিশুসদনে ছাত্রাবাসের শিশুদের জন্য পাশাপাশি দু’টি বাথরুম থাকলেও একটি ছিলো পরিত্যাক্ত। এক সপ্তাহ পর ছাত্রাবাসের শিশুরা ঐ পরিত্যাক্ত বাথরুম থেকে গন্ধ বের হতে দেখে প্রথমে স্থানীয়দের ও পরে পুলিশে খবর দেয়।

বিকাল সাড়ে ৪টায় বেতবুনিয়া পুলিশ উকাইন্দা শিশুসদনের পরিত্যাক্ত বাথরুমের ভেতর থেকে লাগানানো দরজা ভেঙ্গে সিলিংয়ের সাথে ঝুলানো ঐ ভিক্ষুর গলিত লাশ উদ্ধার করে।

পুলিশের ধারণা সপ্তাহ খানেক পুর্বে কোন এক সময় ঐ বৃদ্ধ পরিত্যাক্ত বাথরুমে ঢুকে আত্মহত্যা করে থাকতে পারে। তবে ৬৫ বছর বয়সী একজন বৌদ্ধ ভিক্ষু কি কারণে আত্মহত্যা করেছে সে বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

বেতবুনিয়া ইউপি চেয়ারম্যান খইচাবাই তালুকদার জানান, বৃদ্ধ এ ভিক্ষু দীর্ঘ প্রায় ৩০ বছর যাবৎ বিভিন্ন বৌদ্ধ উপাসনালয়ের সাথে জড়িত ছিলো। তবে নির্দিষ্ট কোন আশ্রমে দীর্ঘদিন থাকতো না। ২/৩ মাস পর পর তিনি স্থান পরিবর্তন করতেন এবং তার সুবিধা অনুযায়ী তিনি কাজ করতেন।

তবে কি কারণে বৃদ্ধ বয়সে তিনি আত্মহত্যা করতে গেলেন তার কোন উত্তর কেউ খুঁজে পাচ্ছেনা। এব্যাপরে কাউখালী থানায় অপমৃত্যু মামলা দায়ের করেছে পুলিশ।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: লাশ উদ্ধার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 − 6 =

আরও পড়ুন