কাশ্মির প্রশ্নে ভারত-পাকিস্তানকে শান্ত থাকার আহ্বান ইউরোপীয় ইউনিয়নের

fec-image

কাশ্মিরের চলমান পরিস্থিতিকে গভীর পর্যবেক্ষণের আওতায় রেখেছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন। উত্তেজনাকর পরিস্থিতিতে ভারত-পাকিস্তান দুই পক্ষকেই শান্ত থাকার আহ্বান জানিয়েছে সংস্থাটি। সোমবার (৫ আগস্ট) ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিলের মধ্য দিয়ে কাশ্মিরের স্বায়ত্তশাসনের অধিকার কেড়ে নেওয়ার পাশাপাশি জম্মু-কাশ্মিরের প্রশাসনিক ব্যবস্থাকে রাজ্য থেকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করতে রাজ্যসভায় বিল পাস করে বিজেপি সরকার। পরদিন মঙ্গলবার (৬ আগস্ট) লোকসভায়ও পাস হয় বিলটি।

ভারতের জম্মু-কাশ্মির পুনর্গঠন বিল ২০১৯ এর আওতায় জম্মু-কাশ্মির ও লাদাখ হবে পৃথক কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল। এ নিয়ে মঙ্গলবার চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত বিবৃতিতে ভারতকে হুঁশিয়ার করা হয়। দুই পক্ষের মধ্যে সীমান্ত সংক্রান্ত যে সমঝোতা হয়েছিল তা মেনে চলার জন্য এবং সীমান্ত ইস্যুগুলো আরও জটিল করে তুলবে এমন পদক্ষেপ থেকে বিরত থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়। পাকিস্তান ভারতের এই পদক্ষেপের বিরুদ্ধে সামর্থ্যের সবকিছু দিয়ে লড়াই করার ঘোষণা দিয়েছে।

ইইউ-এর পররাষ্ট্র বিষয়ক একজন মুখপাত্র কার্লোস মার্টিন রুইজ সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, ‘আমরা প্রধানত যে বার্তাটি দিতে চাই, তা হলো কাশ্মিরসহ গোটা অঞ্চলে উত্তেজনা বৃদ্ধির মতো কোনও পরিস্থিতি তৈরি না হওয়াটাই সবথেকে জরুরি।’

কাশ্মির নিয়ে ভারত সরকারের সাম্প্রতিক পদক্ষেপের রাজনৈতিক ও আইনি তাৎপর্য রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

14 − one =

আরও পড়ুন