নাইক্ষ্যংছড়ির বাইশারীতে মা-মেয়ের লাশ উদ্ধার

Capture

নাইক্ষ্যংছড়ি প্রতিনিধি:

নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারী থেকে এক নারী ও তার পনের মাস বয়সী মেয়ের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার সকালে বাইশারী সদর থেকে অন্তত ১২ কি. মি. দূরে দুর্গম আলীক্ষ্যং গ্রামের খাল থেকে ভাসমান অবস্থায় তাদের লাশ উদ্ধার করা হয়। প্রাথমিক ভাবে বিষ পান অথবা পানিতে ডুবে তাদের মৃত্যু হয়েছে বলে ধারণা করছে পুলিশ। নিহত দুইজন হলেন রেহেনা বেগম (২২) ও তার ১৫ মাস বয়সী মেয়ে নাজনিন আক্তার।

পুলিশ জানায়, রবিবার সকালে স্থানীয় এক প্রতিবেশী আলীক্ষ্যং খালে গেলে নাছির উদ্দিন এর স্ত্রী রেহেনা বেগম ও তার শিশু মেয়েকে খালের হাটু পরিমাণ পানিতে ভাসমান অবস্থায় দেখতে পায়। পরে খবর পেয়ে নাইক্ষ্যংছড়ি থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আবুল খায়ের, বাইশারী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ এসআই আনিসুর রহমান, এসআই জয়নাল ঘটনাস্থল থেকে ওই মা-মেয়ের লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায়।

স্থানীয়রা জানান, গত কয়েক দিন পূর্বে রেহেনা বেগমের দেবর মো. মহারাজ (১৭) এর সাথে পারিবারিক তর্কবিতর্ক হয়। পরে নিহতের স্বামী নাছির উদ্দিন পাহাড়ে ফুলের ঝাড়ু সংগ্রহে যাওয়ার পর রবিবার সকালে তাদের লাশ পাওয়া যায়। ঘটনার পর বাইশারী পুলিশ নিহতের বসতবাড়ি থেকে খোলা একটি বিষের বোতল উদ্ধার করেছে এবং নিহতের দেবর মো. মহারাজ (১৭) কে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ হেফাজতে নিয়েছে।

নাইক্ষ্যংছড়ি থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আবুল খায়ের জানান, প্রাথমিক অনুসন্ধানে মায়ের শরীরে কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি তবে শিশু মেয়ের ঘাড়ে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

প্রতিবেশী ও স্বামীর কাছ থেকে জানা গেছে, গত কয়েক দিন পূর্বে নিহতের স্বামী নাছির উদ্দিনের ছোট ভাই মো. মাহারাজের সাথে ঝগড়া হয়। ঘটনার পর নাছির উদ্দিনের বাড়ি থেকে একটি বিষের বোতল উদ্ধার করা হয়েছে। এ বিষয়ে তদন্ত করা হচ্ছে বলে তিনি জানান।

উল্লেখ্য, রেহেনা বেগম ও নাছির উদ্দিনের গত দুই বছর পূর্বে বিবাহ হয়। তাদের পরিবারে একমাত্র মেয়ে ছিল নাজনিন আক্তার।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: উদ্ধার, নাইক্ষ্যংছড়ির, বাইশারীতে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

three × five =

আরও পড়ুন