বিশ্ব সুন্দরী প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের রেকর্ড

বিনোদন ডেস্ক:

বিশ্ব সুন্দরী প্রতিযোগিতা ”মিস ওয়ার্ল্ড”এ রেকর্ড গড়লো বাংলাদেশ। এই প্রথমবারের মত বাংলাদেশের হয়ে বরিশালের মেয়ে জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী জায়গা করে নিয়েছিল গ্র্যান্ড ফিনালেতে সেরা ৩০এ। তবে সেরা ১২’তে জায়গা করে নিতে না পেরে সেরা ৩০এর সফলতা হাতে নিয়েই দেশে ফিরতে হচ্ছে তাকে।

শনিবার(৮ ডিসেম্বর) চীনের সানাই শহরে মিস ওয়ার্ল্ড-এর গ্র্যান্ড ফিনালেতে চূড়ান্ত বিজয়ী ঘোষণার আগে ঝলমলে মঞ্চে ৩০ প্রতিযোগীর সঙ্গে আসেন ঐশী। সেখানে ঘোষিত সেরা ১২ জনের মধ্যে জায়গা করে নিতে পারেননি তিনি। এশিয়া ও ওশেনিয়া গ্রুপ থেকে নেপাল, নিউজিল্যান্ড ও থাইল্যান্ডের প্রতিযোগী সেরা ১২তে স্থান পান।

এর আগে গত বছর সেরা চল্লিশে জায়গা করে নিয়েছিলেন জেসিয়া ইসলাম। এরপর হেড টু হেড চ্যালেঞ্জ পর্বে ছিটকে যান। তবে এবছর সবাইকে চমকে দিয়ে ঐশী জায়গা করে নেন সেরা ত্রিশে। যা এখন পর্যন্ত বাংলাদেশের কোনো প্রতিযোগীর সর্ব্বোচ সাফল্য।

হেড টু হেড পর্বে নাইজেরিয়ার সুন্দরীকে বুদ্ধিমত্তা ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনার তথ্যে হারিয়ে দেন ঐশী। মিস ওয়ার্ল্ড কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এই বিভাগে ২ দশমিক ২ বিলিয়ন ভিউ এবং ২০ মিলিয়ন ভোট নেওয়া হয়। ২০ জন প্রতিযোগীর প্রত্যেকে ৯০ সেকেন্ড সময়ের মধ্যে বিচারকদের জানিয়েছে তাঁদের স্বপ্ন আর ইচ্ছার কথা। এর মধ্যে ঐশীর স্বপ্ন আর ইচ্ছার কথা শুনে মুগ্ধ হয়েছেন বিচারকেরা। ঐশী তাঁর স্বপ্নের কথায় উল্লেখ করেছেন বিশ্বসুন্দরী প্রতিযোগিতায় জয়ী হওয়ার পর প্রতিবন্ধী শিশুদের পাশে দাঁড়াবেন তিনি। ঐশীর সেই হেড টু হেড পর্বের ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেক বাংলাদেশীকে শেয়ার করে উচ্ছাস প্রকাশ করতে দেখা গেছে। ঐশীর এমন বক্তব্যে মুগ্ধ হয়ে বিচারকেরা জানিয়েছিলেন সেরা ত্রিশে লড়াই করার মত যোগ্যতা ঐশীর আছে।

ঐশী ফিনালেতে তার সফলতা কামনা করে দেশবাসীর কাছে ভিডিও বার্তার মাধ্যমে দোয়া চেয়েছিলেন।

৬৮তম মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতায় ১৫০টি দেশের প্রতিযোগীর সঙ্গে অংশ নেয়া ঐশী গ্র্যান্ড ফিনাল শেষে দেশে ফিরবেন ১০ ডিসেম্বর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

2 + five =

আরও পড়ুন