“উপর্যপুরিভাবে দা দিয়ে কুপিয়েছে একদল সন্ত্রাসী।”

মহেশখালীতে সন্ত্রাসী হামলায় আহত-২

fec-image

 

দিন দুপরে ঘরে ঢুকে ঘুমান্ত অবস্থায় দুই জনকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করেছে সন্ত্রাসীরা।

শুক্রবার বেলা ২টায় উপজেলার কুতুবজোমের কামিতার পাড়ায় এই ঘটনা ঘটে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, স্থানীয় কামিতার পাড়ার বদির আলম মাঝি এর সাথে ও হাফেজ ফরিদ কামাল গংদের মধ্যে র্দীঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিলো। এইবিরোধের জের ধরে (৭জুন) শুক্রবার বেলা ২টায় নিজ ঘরে ঘুমাচ্ছিল বদির আলম মাঝি (৪০) ও তার সালিকা রেহেনা বেগম (৩৬) কে উপর্যপুরি ভাবে দা দিয়ে কুপিয়েছে ফরিদ কামালের নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী।

আহত নারীর স্বামী সফিউল আলম জানান, ফরিদ কামালের নেতৃত্বে আকতার, সিরাজ, সরওয়ার, আবছার, নুর হাসম, রহিম মিয়া, লেদু মিয়া, রহিম , নেজাম ও মহিম সহ ১২/১৫ জনের একদল অস্ত্রধারী। তাদের প্রত্যেকের হাতে দা ছিলো। ঘটনার পর হামলা কারীরা বাড়িতে ভাংচুর ও লুটপাট চালায়। আহতদের উদ্ধার করে প্রথমে মহেশখালীতে এর পর কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেওয়া। বর্তমানে চট্টগ্রাম মেডিকেলে প্রেরন করেছে ডাক্তার।

কক্সবাজার সদরের ডাক্তার জানান, আহত রেহেনার অবস্থা শংকটপন্ন তার মাথায় গুরুতর জখম ও হাতে প্রচুর আঘাত রয়েছে ফলে অতিরিক্ত রক্ত করণ হয়েছে।

মহেশখালী থানার পুলিশ জানান, ঘটনার বিষয়টি জানার পর মুল অপরাধিদের ধরতে পুলিশ অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, বিগত বছর দুই পূর্বে ওই হামলা কারীরা বদির আলম মাঝির পরিবারের উপর হামলা করেছিলো ওই ঘটনার সুষ্ঠু বিচার না করার কারণে আবারও তারা হামলা করতে সাহস করেছে। এই ঘটনা পরিকল্পিত ভাবে করা হয়েছে বলে এলাকাবাসীর দাবি।

ঘটনাপ্রবাহ: আহত, সন্ত্রাসী, হামলা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

5 × four =

আরও পড়ুন