মুক্তিযুদ্ধ হয়েছে বলেই আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি: নওরোজ নিকোশিয়ার

নিজস্ব প্রদিবেদক, মাটিরাঙ্গা:

মাটিরাঙ্গা জোন অধিনায়ক লে. কর্নেল নওরোজ নিকোশিয়ার বলেছেন, মুক্তিযুদ্ধ হয়েছে বলেই আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি। মুক্তিযোদ্ধারা জীবনের ঝুকি না নিলে এদেশ স্বাধীন হতো না।

রবিবার(১৬ ডিসেম্বর) বেলা ৩টার দিকে মাটিরাঙ্গার স্বাধীনতা সোপান প্রাঙ্গণে মাটিরাঙ্গা উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত বীর মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমরা পরাধীনতার শৃঙ্খলমুক্ত হতে পারতাম না। মুক্তিযোদ্ধাদের হাত ধরেই আমাদের মুক্তি মিলেছে। স্বাধীনতা সংগ্রামে এ বীর যোদ্ধাদের অবদান আজ বিশ্ব স্বীকৃত। মুক্তিযোদ্ধাদের আলোয় আমরা নিজেদের আলোকিত করেছি।

মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ‘র সভাপতিত্বে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র মো. শামছুল হক, মাটিরাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সৈয়দ মো. জাকির হোসেন, মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সুবাস চাকমা, মাটিরাঙ্গা উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হাসিনা বেগম, মাটিরাঙ্গা উপজেলা সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মো. মুনছুর আলী, মাটিরাঙ্গা পৌর মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার মো. আবুল হাসেম প্রমুখ।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণে উজ্জীবিত হয়েই এদেশের মুক্তিপাগল মানুষ যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল উল্লেখ করে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের সভাপতি বিভীষণ কান্তি দাশ বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দেখানো পথ ধরেই শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে নতুন উচ্চতায় নিয়ে গেছেন।

এর আগে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি মাটিরাঙ্গা জোন অধিনায়ক লে. কর্নেল নওরোজ নিকোশিয়ার পিএসসি জি এবং মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ অন্যান্য বছরের ধারাবাহিকতায় বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের জন্য মাটিরাঙ্গা উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত দিনব্যাপী ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্পের উদ্বোধন করেন।

পরে অনুষ্ঠানে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মাঝে আর্থিক সহায়তা ও শীতের কম্বল বিতরণ করেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি মাটিরাঙ্গা জোন অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ নওরোজ নিকোশিয়ার পিএসসি জি ও মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

20 + three =

আরও পড়ুন