রাঙামাটিতে টানা বর্ষণে ক্ষতির হিসেব দিলেন প্রশাসন

fec-image

টানা আটদিনের অতি বর্ষণে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ও ত্রাণ তৎপরতা নিয়ে রাঙামাটি জেলা প্রশাসন সংবাদ সম্মেলন করেছেন। সোমবার (১৫জুলাই) সন্ধ্যায় জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সংবাদ সন্মেলনে জানানো হয়- জেলার ১০ উপজেলায় অতিবর্ষণে বন্যা ও পাহাড়ধসে ২৮ হাজার ৪৫২ জন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। ৭৩টি আশ্রয় কেন্দ্রে কয়েক হাজার মানুষ আশ্রয় নিয়েছেন। শুধু রাঙামাটি শহরে ১১ কেন্দ্রে ২৭০ পরিবারের প্রায় এক হাজার মানুষ আশ্রয় নিয়েছিলেন।

এদিকে কাপ্তাই উপজেলায় পাহাড়ধসে ৪জনের মৃত্যু হয়েছে। এবার প্রাকৃতিক দুর্যোগে রাঙামাটি জেলার ১০ উপজেলায় ৬৪৫০ হেক্টর আউশ ধান, ৩৮৮ হেক্টর রোপা আমন বীজতলা ও ২৪৭৫ হেক্টর সবজির ফসল নষ্ট হয়েছে।

সোমবার পর্যন্ত ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ২২৫ মেঃটন চাল, ৫লাখ ৬০ হাজার নগদ টাকা ও ২ হাজার প্যাকেট শুকনো খাবার বিতরণ করা হয়েছে।

এদিকে ভারি বর্ষণে রাঙামাটির বিভিন্ন সড়কে পাহাড়ধসে ও দেবে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। রাঙামাটি-চট্টগ্রাম সড়কে ভারি যান চলাচল বন্ধ আছে। রাঙামাটি-বান্দরবান এবং রাঙামাটি-খাগড়াছড়ি সড়ক বিচ্ছিন্ন হওয়ায় এক সপ্তাহেও সচল হয়নি। এসব সড়কে জরুরি মেরামত ও সংস্কার কাজ চলছে বলে জানিয়েছে জেলা প্রশাসন।

জেলার সার্বিক এসব পরিস্থিতি তুলে ধরেন ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক এসএম শফি কামাল। এসময় এনডিসি উত্তম কুমার দাশসহ জেলা প্রশাসনের অন্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: কাপ্তাইয়ে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে মঙ্গল শোভাযাত্রা, বর্ষণে ক্ষতির, রাঙামাটিতে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

10 − 6 =

আরও পড়ুন