রামগড়ে মাদ্রাসার ষষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্রী ধর্ষিত, ধর্ষক আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক, রামগড়:

খাগড়াছড়ির রামগড়ে মাদ্রাসার ষষ্ঠ শ্রেণীর এক ছাত্রী(১১) ধর্ষণের শিকার হয়েছে। শুক্রবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ধর্ষক যুবককে আটক করেছে।

পুলিশ ও ভিকটিমের পরিবার জানায়, রামগড় পৌরসভার দারোগাপাড়ার বাসিন্দা ১১ বছরের ঐ শিশু কন্যা তাদের এক প্রতিবেশীর সাথে শুক্রবার রাতে পার্শ্ববর্তী ফেনী নদীতে মাছ ধরতে যায়। এ সময় (রাত ৮টার দিকে) বাবলু(৩১) নামে এক যুবক ঐ মেয়েটিকে মহামুনি এলাকায় নদীর চরে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে।

বাবলু চট্টগ্রামের বায়োজিত থানার আঁতুরেরডিপো এলাকার কবির আহম্মদের পুত্র। রামগড়ের দারোগাপাড়ায় তার শ্বশুরবাড়ি। পেশায় হকার। এক সন্তানের জনক। প্রতিবেশী হওয়ায় ভিকটিম বাবলুকে দুলাভাই ডাকে।

মেয়েটি বাসায ফিরে তার মাকে ঘটনাটি জানানোর পর প্রতিবেশীদের সহায়তায তারা বাবলুকে আটক করে পুলিশের কাছে সোপর্দ করে।

বাবলু জানায়, সে তার স্ত্রী ও ঐ মেয়েটিকে সাথে নিযে ফেনী নদীতে মাছ ধরতে যায। স্ত্রী মাছ ধরতে ধরতে সামনে এগিয়ে গেলে সে তার সঙ্গীয় মেয়েটিকে নদীর চরে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে। তবে ভিকটিম অভিযোগ করেছে বাবলু তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেছে।

রামগড় থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) তারেক মো. আব্দুল হান্নান জানান, জিজ্ঞাসাবাদে ভিকটিম পুলিশের কাছে বলেছে বাবলু তাকে ধর্ষণ করেছে। তিনি বলেন, ভিকটিমকে মেডিকেল চেকআপ করার জন্য শনিবার খাগড়াছড়ি জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হবে।

ওসি জানান, ভিকটিমের পরিবার মামলা রুজুর প্রস্তুতি নিচ্ছে।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আটক, ছাত্রী, ধর্ষক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × 4 =

আরও পড়ুন