“নিখোঁজ হওয়া ঘটনাস্থল থেকে অন্তত ৫ কি:মি দূরে মংনুং পাড়ার নিচে সাঙ্গু নদী থেকে উদ্ধার করা হয় সাইফুল্লাহর লাশ। পরে বিকাল ৪টার দিকে উদ্ধার করা হয় কলেজছাত্রী জান্নাত আরা বেগমের লাশটি।”

রুমায় নৌ-বাহিনী কর্মকর্তা ও কলেজছাত্রীর লাশ উদ্ধার

fec-image

বান্দরবানের রুমায় পাইন্দু খালে পানির স্রোতে ভেসে যাওয়া নৌ-বাহিনীর সেকেন্ড লেফটেন্যান্ট সাইফুল্লাহ (২৩) ও কলেজছাত্রী জান্নাত আরা বেগমের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

সোমবার (১জুলাই) নিখোঁজ হওয়া ঘটনাস্থল থেকে অন্তত ৫ কি:মি দূরে মংনুং পাড়ার নিচে সাঙ্গু নদী থেকে উদ্ধার করা হয় সাইফুল্লাহর লাশ। পরে বিকাল ৪টার দিকে উদ্ধার করা হয় কলেজছাত্রী জান্নাত আরা বেগমের লাশটি।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সোমবার সকালে রুমা উপজেলার পাইন্দু ইউনিয়নের নিয়াক্ষ্যং পাড়ায় সাঙ্গু নদী থেকে সাইফুল্লাহর লাশ উদ্ধার করে স্থানীয়রা। পরে রুমা থানা পুলিশ ওই স্থান থেকে লাশটি উদ্ধার করে উপজেলা সদরে নিয়ে আসে। এর আগে নিখোঁজ হওয়ার পর সেনাবাহিনী, নৌবাহিনীর ডুবুরি, পুলিশসহ স্থানীয় লোকজন তাদের উদ্ধারে তৎপরতা চালায়।

এদিকে বিকাল ৪টার দিকে নদী থেকে উদ্ধার করা হয় কলেজছাত্রী জান্নাত আরা বেগমের মরদেহটি। লাশ উদ্ধারের বান্দরবান সেনা রিজিয়নের মুখপাত্র মেজর ইফতেখার লাশ উদ্ধারের তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এছাড়াও রোয়াংছড়ি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. মেহেদী হাসানও লাশ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

উল্লেখ্য শনিবার ঢাকা থেকে রোয়াংছড়ি যান নৌবাহিনীর চারজন কনিষ্ঠ কর্মকর্তাসহ ৬ পর্যটক। পরে দুর্গম রনিন পাড়ার কাছে তিনাপ সাইথার ঝর্ণা দেখে ফেরার সময় পাহাড়ি পাইন্দু খাল পার হতে গিয়ে তাদের মধ্যে নৌ-বাহিনীর সেকেন্ড লেফটেন্যান্ট সাইফুল্লাহ ও ঢাকার গ্রিন হার্ট আর্ট কলেজের ছাত্রী জান্নাত আরা বেগম পানিতে পড়ে নিখোঁজ হন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

six + 16 =

আরও পড়ুন