অপরাধী যেই দলেরই হোক ছাড় দেওয়া হবে না : পেকুয়া আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় বক্তারা

fec-image

পেকুয়া আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্টিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) সকাল ১০টায় উপজেলা হলরুমে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মোতাছেম বিল্যাহ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন কক্সবাজার -১ (চকরিয়া-পেকুয়া) সংসদ সদস্য আলহাজ্ব জাফর আলম বিএ (অনার্স) এম এ।

বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান উম্মে কুলসুম মিনু, ভাইস চেয়ারম্যান আজিজুল হক, পেকুয়া থানার ওসি সাইফুর রহমান মজুমদার বিপিএম, মুক্তিযোদ্ধা এডভোকেট কামাল হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগ সদস্য গিয়াস উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্য সচিব আবুল কাশেম, উপজেলা প্রকল্প কর্মকর্তা আমিনুল ইসলাম, পল্লী বিদ্যুৎ ইনচার্জ শ্যামল দে, পেকুয়া সরকারি মডেল জি এম সি ইনস্টিটিউশনের প্রধান শিক্ষক জহির উদ্দিন।

এ সময় বক্তারা বলেন, পেকুয়ার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি দিন দিন অবনতি হচ্ছে। পেকুয়া চৌমুহুনী ও পেকুয়া বাজারে তীব্র যানযট পরিলক্ষিত হয়েছে। তা নিরসন করতে উপজেলা চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মোতাছেম বিল্যাহ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্য সচিব আবুল কাশেম, পেকুয়া থানার ওসি সাইফুর রহমান মজুমদারকে দায়িত্ব দেন। অপরাধী যেই দলেরই হোক না কেন ছাড় দেওয়া হবে না।

সম্প্রতি পেকুয়া চৌমুহনী মকবুল আহমদ চৌধুরী জামে মসজিদ ও সাবেক গুলদি জামে মসজিদসহ বিভিন্ন জামে মসজিদের কবরস্থান দখল করে মার্কেট নির্মাণ ও কমিটি নিয়ে বিরোধ সৃষ্টি হয়েছে এবং এতে নানাভাবে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ হওয়ার আশংকা করা হচ্ছে এবং আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি অবনতি হওয়ার আশঙ্কায় তা নিরসনের জন্য পেকুয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মোতাছেম বিল্যাহ ও পেকুয়া থানার ওসি সাইফুর রহমান মজুমদারকে নির্দেশ দেওয়া হয়। মগনামা লঞ্চ ঘাটে নিরাপত্তা জোরদার করার জন্য ওসিকে নিদের্শ দেওয়া হয়।

পেকুয়া উপজেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির সদস্য না হওয়ার পরও পেকুয়া উপজেলা শ্রমিকলীগ সভাপতি নুরুল আবচার আইন শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভায় উপস্থিত হয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যানকে কটাক্ষ করে বক্তব্য দেওয়ায় নুরুল আবছারকে শাষিয়ে দেয় এবং উক্ত সভায় আর না আসার জন্য অনুরোধ করে।

পেকুয়া থানার ওসি সাইফুর রহমান মজুমদার বলেন, আমি জনগণের সেবক আমার থানায় কোন দালালদের ঠাই হবে না এবং মাদকমুক্ত পেকুয়া গড়বো সকলের সহযোগিতায়। আমি মাদকের বিরোধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করছি৷ আমার থানায় কোন জমি জমার বিচার বাণিজ্যে এবং থানায় টেবিল বসিয়ে বিচার করা হবে না। যা করতে হবে তা আদালতে হবে। আমি শুধু শান্তিশৃঙ্খলা পরিস্থিতি বজায় রাখতে চেষ্টা করবো।

সম্প্রতি গণমাধ্যমে উঠে আসছে পেকুয়া মসজিদ মার্কেটে দালালদের দৌরাত্ম্য বাড়ছে তাদের বিরোধে অভিযান পরিচালনা করার নির্দেশ দিয়েছে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে। পূজামন্ডপে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে পূজা উদযাপন করার জন্য পূজা উদযাপন কমিটিকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পূজামন্ডপে সার্বক্ষনিক নিরাপত্তা দেওয়ার জন্য ওসিকে নির্দেশ  দেওয়া হয়।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

1 × three =

আরও পড়ুন