অবহেলাজনিত কারণে সংক্রামিত হাম রোগের পাশে দাঁড়াল সেনাবাহিনী

fec-image

গত দুই মাস যাবত সাজেকের শেয়ালদাহপাড়া সংলগ্ন লুন্থিয়ানপাড়া এবং উরুনপাড়ায় এক মহামারি রোগের আবির্ভাব হয়। প্রথমত রোগের কারণ উদঘাটন করতে পারেনি স্থানীয়রা। পরবর্তীতে কারণ খুঁজতে গিয়ে দেখা দেয় হামের লক্ষণ। কিন্তু ততক্ষণে প্রান হারায় ৫টি শিশু এবং আক্রান্ত হয় শতাধিক শিশু যার ভিতর রয়েছে বৃদ্ধ বয়সী লোকজন।

রবিবার (২২ মার্চ ২০২০) অবহেলা এবং কুসংস্কারজনিত কারণে প্রাণ হারায় আরো এক শিশু যার নাম গেরেথি ত্রিপুরা (৯)। সেই সূত্র ধরে ২৪ মার্চ  দিবাগত গভীর রাতে মারা যায় আরো ২ টি শিশু। এখন মৃতের সংখ্যা সর্বমোট ৮ জন। খবর পাওয়া মাত্র সেনাবাহিনী তাদের মানবতার হাত বাড়িয়ে দেয়।

মঙ্গলবার (২৪ মার্চ ২০২০) আনুমানিক ১টার দিকে সেনাবাহিনীর একটি চৌকশ ডাক্তারি দল এবং ৪ জন বেসামরিক ডাক্তারসহ হেলিকপ্টারযোগে শেয়ালদাহপাড়ায় গমন করে। তাদের লক্ষ্য, ২ দিনে এই শতাধিক রোগীর চিকিৎসা করা। আগামীকাল থেকে লুন্থিয়ানপাড়া এবং উরুনপাড়ার সকল রোগী সেনাবাহিনীর চিকিৎসা সহায়তা পাবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

স্থানীয় কারবারির সূত্রে জানা যায়, হামের মত একটি মহামারী ছোঁয়াচে রোগ মোকাবেলায় সেনাবাহিনীর ভূমিকা অপরিসীম। এতে স্থানীয়রা অনেক সন্তুষ্ট এবং কৃতজ্ঞ। সেনাবাহিনীর এমন জনকল্যাণমূলক কার্যক্রম আমরা ভবিষ্যতে আরো দেখবো বলে আশাবাদী।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: সেনাবাহিনী, হাম রোগের
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

8 − six =

আরও পড়ুন