রাজাপালংকে ২-০ গোলে উড়িয়ে শুভ সূচনা পালংখালীর

উখিয়ায় জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট শুরু

fec-image

সারা দেশের ন্যায় কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলায় শুরু হয়েছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট (অনূর্ধ্ব-১৭) ২০২৪।

শুক্রবার (২৮ জুন) বিকালে উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে উখিয়া সরকারি উচ্চবিদ্যালয়ের মাঠে শুভ উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে শুরু হয় ছেলেদের এই বয়ঃভিত্তিক ফুটবল টুর্নামেন্ট।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি তানভীর হোসেনের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী ম্যাচে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী।

উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি হয় ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নস ৪নং রাজাপালং ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ ও টুর্নামেন্টের আরেক সফল দল ৫নং পালংখালী ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ।

ম্যাচের প্রথমার্ধের শুরুর ১৫ মিনিটের মধ্যে প্রথম গোল হজম করে বসে সদর ইউনিয়ন (রাজাপালং)। প্রথমার্ধে যোগ করা সময়ে আরও একটি গোল হজম করে রাজাপালং ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ। পরে দ্বিতীয়ার্ধে কেনো পক্ষই গোল দিতে না পারায় ২-০ গোলে ম্যাচ শেষ হয়। নিজেদের মাঠে হারের বেদনা নিয়ে টুর্নামেন্টের শুরুতেই বিদায় নেয় বর্তমান চ্যাম্পিয়নসরা।

পালংখালী ইউনিয়ন ফুটবল একাদশের হয়ে গোল দুটি করেন যথাক্রমে আসাব উদ্দিন রকি ও নুরুল মোস্তফা লালু।

নিজের দল জয়ী হওয়ার পর অনুভূতি জানিয়ে পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান এম. গফুর উদ্দিন চৌধুরী বলেন, খেলোয়াড়দের পারফরম্যান্সে আমি আনন্দিত। আমার লক্ষ্য পালংখালী ইউনিয়ন থেকে জাতীয় মানের খেলোয়াড় তৈরি করা।

উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মামুন শাহীন বলেন, নকআউট পদ্ধতিতে উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়ন নিয়ে টুর্নামেন্টটি আয়োজন করা হয়েছে। প্রথম ম্যাচের বিজয়ী দল সরাসরি সেমিফাইনালে খেলবে। পরবর্তী ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে জালিয়াপালং ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ বনাম রত্নাপালং ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর হোসেন বলেন, প্রতি বছরের ন্যায় এবারও শুরু উপজেলায় শুরু হয়েছে বয়সভিত্তিক ফুটবল টুর্নামেন্ট। সরকারের পৃষ্ঠপোষকতায় উপজেলা ক্রীড়া সংস্থা এ আয়োজন করে থাকে। উপজেলার খেলোয়াড়দের মানোন্নয়ন ও বিভিন্ন মাঠ সংস্কারের পরিকল্পনা নেওয়া হচ্ছে বলে তিনি জানান।

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী বলেন, উখিয়ায় ক্রীড়ার উন্নয়নের জন্য মাস্টারপ্ল্যান করা হচ্ছে। বিভিন্ন ইউনিয়ন ও গ্রাম পর্যায়ে মাঠ ও খেলোয়াড়দের মানোন্নয়নে কাজ করা হবে। তিনি বলেন, সীমান্তবর্তী উপজেলা হওয়ায় উখিয়ায় মাদকের ছড়াছড়ি রয়েছে। যুব সমাজকে ধ্বংসের দ্বারপ্রান্ত থেকে ফিরিয়ে আনতে নানামুখী পরিকল্পনা গ্রহণ করা হচ্ছে।

উদ্বোধনী ম্যাচে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা শিক্ষা একাডেমিক সুপারভাইজার বদরুল আলম, রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মো. সালাহউদ্দিন, উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গাজী ওমর ফারুক, রাজাপালংয়ের ইউপি সদস্য ইঞ্জিনিয়ার হেলাল উদ্দিনসহ অনেকেই।

প্রথম ম্যাচে পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন কক্সবাজার রেফারি অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য শফিউল আলম (শফি), জসিম উদ্দিন ও মো. সাঈদি।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন