উখিয়ায় অবৈধ ইটভাটায় অভিযান : গুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে ৩ টি ইটভাটা

fec-image

উখিয়া ও নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তবর্তী এলাকায় গড়ে উঠেছে ডজন খানেক অবৈধ ইটভাটা। এসব ইটভাটা বন্ধে অবশেষে অভিযানে নেমেছে পরিবেশ অধিদপ্তর।

মঙ্গলবার (১২ জানুয়ারি) সকাল ১১টা থেকে দুপুর বিকেল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত উখিয়ার পূর্ব ভালুকিয়া পাড়া হায়দার আলীর মালিকানাধীন এইচ.কে.বি ও নাক্ষ্যংছড়ির উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের রেজু ফাত্রাঝিরি এলাকার এডভোকেট শহিদের মালিকানাধীন এস.এইচ.বি ইটভাটা ও একই ইউনিয়নের রেজুগর্জনবনিয়া এলাকার সাজু বড়ুয়া’র মালিকানাধীন এইচ.এস.বিসহ ৩টি ইটভাটা সম্পূর্ণভাবে ধ্বংস করে দেন পরিবেশ অধিদপ্তর।

অভিযানে নেতৃত্ব দেন পরিবেশ অধিদপ্তরের সিনিয়র সহকারী সচিব ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সাদিকুর রহমান সবুজ।

অভিযান চলাকালে তিনি বলেন, কক্সবাজারে ১০৫টি ইটভাটার মধ্যে ৬২টি ইটভাটা অবৈধ। আর বান্দরবান জেলার সমস্ত ইটভাটা অবৈধ। যে গুলোতে কোন ধরনের পরিবেশ ছাড়পত্র ও ইট পুড়ানোর ছাড়পত্র নাই। এসব ইটভাটা ধ্বংসে দেশব্যাপী অভিযান চলছে। এর অংশ হিসেবে আজকের এই অভিযান। পর্যায়ক্রমে সকল অবৈধ ইটভাটার বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে।

অভিযানে কক্সবাজার পরিবেশ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক শেখ মুহাম্মদ নাজমুল হুদা, সহকারি পরিচালক সংযুক্ততা দাশ গুপ্ত, মঈনুল হক, পরিদর্শক মাহবুবুল ইসলাম, বান্দরবান পরিবেশ অধিদপ্তরের জুনিয়র ক্যামিস্ট আবদুস সালামসহ র‌্যাব, পুলিশ, বিজিবি এবং ফায়ার ব্রিগেড এর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: ইটভাটা, উখিয়া
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

one × 3 =

আরও পড়ুন