উখিয়ায় অস্ত্রসহ ৪ রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী আটক, অপহৃত উদ্ধার

fec-image

উখিয়ার ক্রাইম জোন মধুরছড়া ক্যাম্প এলাকায় এক অপহৃত রোহিঙ্গা যুবককে উদ্ধার করতে গিয়ে পুলিশ ও রোহিঙ্গা অস্ত্রধারীদের মাঝে সংঘর্ষের ঘটনায় ৫ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে। এঘটনায় পুলিশ ৪ রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীকে আটক করেছে।

সোমাবর(১৭ ফেব্রুয়ারি) রাত দেড়টার দিকে উক্ত ঘটনাটি ঘটেছে বলে মধুরছড়া ক্যাম্প পুলিশের এসআই মোবারক হোসেন জানিয়েছেন।

আহত পুলিশের সদস্যরা হলেন- পুলিশের এসআই ছিম্পু বড়ুয়া, শাহীন আহম্মদ, তানভির ছোটন, আকিদ ও অণিক দাশ। খবর পেয়ে উখিয়া থানার নবাগত ওসি মর্জিনা আক্তার মর্জিয়া পুলিশ ফোর্স নিয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে অপহৃত যুবক মোঃ খালেদকে উদ্ধার করার পাশাপাশি অপহরনের সাথে জড়িত ক্যাম্প ৬ এর শীর্ষ সন্ত্রাসী অস্ত্রধারী মৃত দলিলুর রহমানের ছেলে ছৈয়দ নুর (৪২), নুরুল ইসলামের ছেলে আনিস (২৭), তার স্ত্রী খালেদা (২০) এবং তার স্ত্রী নুর নাহার(২৬) কে আটক করেছে। এসময় তাদের নিকট থেকে একটি দেশীয় অস্ত্র ও দুই রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করে।

বালুখালী ক্যাম্পের রোহিঙ্গা নেতা রহমান মাঝি জানান, পুলিশ অস্ত্রধারী ছৈয়দ নুরসহ ৪জনকে আটক ও অপহৃত খালেদকে উদ্ধার করে চলে যাওয়ার সময় প্রায় দুইশতাধিক রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীরা পুলিশকে লক্ষ করে ইট পাটকেল ও গুলিবর্ষণ করে। এসময় পুলিশ আত্মরক্ষার্থে ৫ রাউন্ড ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে ঘটনাস্থল ত্যাগ করে। ওই ঘটনায় বর্তমানে ক্যাম্প এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে বলেও তিনি জানান।

উখিয়া থানার নবাগত ওসি মর্জিনা আক্তার মর্জিয়ার মুঠফোনে সন্ধায় দীর্ঘক্ষণ চেষ্টা করেও সংযোগ না পাওয়া বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

nine − eight =

আরও পড়ুন