এমপিও শীটে ভুল: গয়ালমারা মাদ্রাসা শিক্ষকদের বেতন-বকেয়া অনিশ্চিত

fec-image

কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলা গয়ালমারা দাখিল মাদ্রাসা ২০০০ খ্রিষ্টাব্দে প্রতিষ্ঠিত। সম্প্রতি প্রতিষ্ঠানটি এমপিওভুক্ত হয়েছে। তবে, এমপিওভুক্তির পরও বকেয়া বেতন বোনাস তুলতে পারছেন না প্রতিষ্ঠানটির শিক্ষকরা। কারণ এমপিও শীটে মাদ্রাসাটির বেতন-ভাতা পরিশোধের ব্যাংকের নাম ভুল এসেছে। তাই, বকেয়া বেতন ভাতা প্রাপ্তি নিয়ে অনিশ্চয়তার মধ্যে আছেন তারা। জটিলতা নিরসনে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছেন শিক্ষকরা।

জানা গেছে, এমপিওভুক্তির জন্য চূড়ান্ত নির্বাচনের পর গত ৪মে শিক্ষক-কর্মচারীরা এমপিওভুক্তির আবেদন করেন। আবেদনে প্রতিষ্ঠানটির বেতন ভাতা পরিশোধে উখিয়া কোটবাজার শাখা রূপালী ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট নম্বর দেয়া হয়। উপজেলার এমপিওভুক্ত স্কুল-কলেজ এবং মাদ্রাসা স্কুলের শিক্ষকদের বেতন-ভাতা এ শাখাতেই পাঠানো হয়।

গয়ালমারা মাদ্রাসার শিক্ষক-কর্মচারীদের অভিযোগ, এমপিও আবেদন যাচাই-বাছাইয়ের পর মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তর ১২ জন শিক্ষক- কর্মচারীর এমপিওভুক্ত করে ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দের জুলাই মাস থেকে ২০২০ খ্রিষ্টাব্দের জুন পর্যন্ত বেতন-ভাতাদি ছাড় করেন। তবে, এমপিও শীটে ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নম্বর ঠিক থাকলেও রূপালী ব্যাংকের পরিবর্তে জনতা ব্যাংক উল্লেখ থাকায় বেতন ভাতাদি তুলতে পারছেন না।

মাদ্রাসা সুপার দিল মোহাম্মদ আক্ষেপ করে বলেন, এমপিও ভুক্ত হওয়ার পরও ব্যাংকের নাম ভুল হওয়ায় আমরা বেতন ভাতাদি উত্তোলন করতে পারছিনা। এমপিও শীটে ভুল দেখে কক্সবাজারে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তার মাধ্যমে মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তরে সংশোধনের আবেদন করেছি। কিন্তু এখন পর্যন্ত সমস্যার সমাধান হয়নি।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

three × four =

আরও পড়ুন