বিনামূল্যে শাড়ি ও সেমাইসহ ১৮টি নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য, খুশি হত-দরিদ্র মানুষ ও কৃষক

খাগড়াছড়িতে অসহায় মানুষের সহায়তায় সেনাবাহিনীর এক মিনিটের ঈদ বাজার

fec-image

করোনার কারণে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক ও কর্মহীন হয়ে পড়া অসহায় মানুষের সহায়তায় ২৪ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি’র নির্দেশনায় খাগড়াছড়ি রিজিয়নের আওতাধীন সদর জোনের ব্যবস্থায় ১ মিনিটের ঈদ বাজার চালু করেছে সেনাবাহিনী।

শাড়ি ও সেমাইসহ ১৮টি নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য পেয়ে যেমন খশি হত-দরিদ্র মানুষ,তেমনী অবিক্রিত সবজি বিক্রি করতে পেরে লাভবান হয়ে খুশি কৃষক।

রবিবার(২৪ মে) সকালে খাগড়াছড়ি ঐতিহাসিক স্টেডিয়ামে ২৪ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি’র নির্দেশনায় ও খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়নের সার্বিক তত্ত্বাধানে ও সদর জোন ব্যবস্থাপনায় ১ মিনিটের ঈদ বাজারের উদ্বোধন খাগড়াছড়ি রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. ফয়জুর রহমান।

এ বাজার থেকে পাহাড়ে বসবাসরত নিম্ন আয়ের মানুষ বিনামূল্যে শাড়ি, লুঙ্গী, চাল, আটা, তেল, চিনি, লবণ, ডাল, সুজি, বিস্কুট, গুড়া দুধ, লাচ্ছা সেমাই, এছাড়াও আলু,বরবটি, মিষ্টি কুমড়া,চিচিঙ্গাসহ ১৮ ধরনের নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী সংগ্রহ করেছেন।

এ সময় খাগড়াছড়ি সদর জোন কমান্ডার লে. কর্নেল জাহিদুল ইসলাম, বিএম মেজর রুমন পারভেজ, জোন উপ-অধিনায়ক মেজর চৌধুরী মোহাম্মদ ফাহিম আশরাফী, জিএসওটু মেজর মো. সালাহউদ্দিন ও খাগড়াছড়ি সদর জোনের অ্যাডজুডেন্ট ক্যাপ্টেন আহসান হাবিব।

সেনাবাহিনীর সদস্যরা এক মিনিটের ঈদ বাজারের জন্য আগের দিন করোনা প্রভাবে ক্ষতিগ্রস্ত প্রান্তি পর্যায়ের কৃষকের কাছ থেকে ন্যায্যমূল্যে নানা ধরনের সবজি কিনে এনে তার সাথে সেমাইসহ ঈদ সামগ্রী বিনামূল্যে তুলে দেন পাহাড়ের প্রতিবন্ধী ও সুবিধাবঞ্চিত মানুষের হাতে। এর ফলে প্রান্তিক কৃষকরা যেমন লাভবান হচ্ছেন তেমনী হত-দরিদ্র মানুষগুলো ঈদ উৎসব পালনের সুযোগ পাচ্ছেন।

এ এক মিনিটের ঈদ বাজারে ছিল সু-শৃঙ্খল ও স্বাস্থ্যবিধি এবং সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত।

খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়নের এ উদ্যোগের একটি চমকপ্রদ দিক হলো এই ঈদ উপহারের সাথে দেয়া প্রতিটি সবজি এই রিজিয়নের আওতাধীন পানছড়ি উপজেলার প্রান্তিক কৃষকদের কাছ থেকে ন্যায্যমূল্যে কিনে আনা হয়েছে। এতে করে করোনা পরিস্থিতিতে উৎপাদিত কৃষিজ পণ্য বিক্রি করতে না পেরে যেসব কৃষক চোখে অন্ধকার দেখছিল তারা ন্যায্যমূল্য পেয়েছে, তেমনি সাধারণ নিম্ন আয়ের মানুষের মুখে ঈদের হাসি ফোটানো সম্ভব হয়েছে।

সাধারণ মানুষ বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর এমন আয়োজনে তাদের ভালবাসা ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন বাহিনীর সকল সদস্যের প্রতি।

এলাকাবাসী জানান, খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়ন সব সময় তাদের সকল বিপদ আপদে পাশে থেকেছেন। এই দুঃসময়ে সাধারণ নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে ঈদ আনন্দ তুলে দেওয়ার জন্য বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর প্রতি তাদের ভালবাসা যেন আরও বাড়িয়ে তুলেছে।

খাগড়াছড়ি রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ফয়জুর রহমান জানান, খাগড়াছড়ি রিজিয়নের আওতাধীন প্রতিটি সেনাসদস্য তাঁদের নিজেদের ঈদ আনন্দ এই গরিব ও অসহায় মানুষদের মাঝে খুঁজে নিতে চান বলেই তাঁদের এই ক্ষুদ্র প্রয়াস। সেনাবাহিনীর সেবাধর্মী কাজ এ বাজার ব্যবস্থাপনা ঈদের আগ পর্যন্ত অব্যাহত থাকবে।

উল্লেখ, ২০ মে খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়নের উদ্যোগে প্রান্তিক কৃষকদের কাছ থেকে ন্যার্য মূলে নিত্য প্রয়োজনীয় কৃষিজ পণ্য কিনে তা বিনামূল্যে ‘১ মিনিটের বাজার ‘ নামে তা নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে তুলে দেয়া হয়।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: করোনা, খাগড়াছড়ি, সেনাবাহিনী
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twelve − 6 =

আরও পড়ুন