গুইমারা উপজেলার খাদ্য গুদামের অনিয়ম: পাচার হয়ে যাচ্ছে চাল

fec-image

সিন্দুকছড়ি জোনের আওতাধীন মানিকছড়ি আর্মি ক্যাম্পের একটি টহল দল মা‌নিকছ‌ড়ি বাজার সংলগ্ন মা‌হি অ‌টো রাইচ মি‌ল গেইট থেকে ১৫ মেঃ টন (৩০ কেজি x ৫০০ বস্তা) চাউল ভর্তি একটি ট্রাক নং চট্টমেট্রো ট- ১৮-৪২৭৯ আটক করে।

জানা যায়, ট্রাকটি গুইমারা উপজেলা গুদাম হতে জালিয়াপাড়া গুচ্ছগ্রামের রেশন কার্ডের চাউল যা বৈধ কাগজপত্র ছাড়াই মানিকছড়ি বাজারে বিক্রি করার জন্য গমন করছিল। চাউল ব্যবসায়ী মো. শফিউল্লাহ (৮৫) পিতা মো. আব্দুল বাসার জালিয়াপাড়া, গুইমারা, খাগড়াছড়ি, নিরাপত্তাবাহিনীর নিকট ভূয়া কাগজপত্র উপস্থাপন করে চালের বৈধতা প্রমাণ করতে ব্যার্থ হলে তিনি পুনরায় বলেন, প্রজেক্ট চেয়ারম্যান এর নিকট হতে ১৫ মেঃ টন চাউল ক্রয় করেছেন এবং পরবর্তীতে মাহি অটো রাইস মিল, মানিকছড়ি, এর নিকট বিক্রয় করেছেন। অদ্যবধি তিনি কোন বৈধ কাগজপত্র উপস্থাপন করতে সক্ষম হননি।

এছাড়াও গোয়েন্দা সূত্রে জানা যায়, গুইমারা উপজেলা খাদ্য গুদামে চাল ও গমের স্থীতির গরমিল রয়েছে। নিরাপত্তাবাহিনী খাদ্য পরিদর্শক গুইমারা উপজেলার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, উক্ত খাদ্য গুদাম হতে কোন ধরনের চাউল বিক্রি করা হয়নি। পরবর্তীতে গুইমারা উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনিও বিষয়টি অবগত নন বলে জানান।

এ বিষয়ে জোন কমান্ডার, সিন্দুকছড়ি জোন বলেন, বিষয়টির বিভাগীয় তদন্তের মাধ্যমে এ ধরনের অনিয়মকারীদের চিহ্নিত করতে হবে। তিনি আরো বলেন, জনগণের নিরাপত্তা ও স্বার্থ রক্ষা এবং অত্র অঞ্চলের দুর্নীতি ও সন্ত্রাস দমনে অত্র জোনের কড়া নজরদারী ও তৎপরতা অব্যাহত থাকবে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

sixteen − ten =

আরও পড়ুন