ইয়াবা ও অস্ত্র উদ্ধার

ঘুমধুম সীমান্তে বিজিবির সাথে গুলি বিনিময়: নিহত-১

fec-image
বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তে বিজিবি ও ইয়াবা কারবারিদের মধ্যে গুলিবিনিময়কালে এক মাদক কারবারি নিহত হয়েছে।
বৃহস্পতিবার রাতে জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের বাইশ ফাঁড়ি আমবাগান এলাকায় এই গোলাগুলির ঘটনা ঘটে।
নিহত ওই মাদক কারবারির নাম মোহাম্মদ ইব্রাহিম (৩০)। সে কুতুপালং লম্বাশিয়া রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পে আশ্রিত সৈয়দ আলম এর ছেলে।
ঘটনাস্থল থেকে ৮০ হাজার পিচ ইয়াবা, দেশে তৈরি একটি একনলা বন্দুক ও ২ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করা হয়েছে।
বিজিবি এক প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, বাংলাদেশ-মায়ানমার সীমান্তের ৩৮নম্বর পিলারের নিকটবর্তী  বাইশ ফাঁড়ি আমবাগান এলাকা দিয়ে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা আসছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে অবস্থান নেয় বিজিবি সদস্যরা।
রাত ১২টার দিকে ৫-৬ জনের একটি দল পাহাড়ি এলাকা দিয়ে বাংলাদেশের দিকে আসতে দেখে তাদেরকে চ্যালেঞ্জ করলে তারা দুইভাগে বিভক্ত হয়ে বিজিবির টহল দলকে লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলিবর্ষণ করে।
এসময় বিজিবিও তাদের জানমাল রক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়। একপর্যায়ে অজ্ঞাত ইয়াবা ব্যবসায়ীরা পাহাড়ী জঙ্গলের মধ্য দিয়ে পালিয়ে যায়।
পরবর্তীতে বিজিবির টহল দল ঘটনাস্থল থেকে অজ্ঞাতনামা এক ব্যক্তিকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে এবং তার পাশে ইয়াবা ও দেশীয় তৈরী একটি এক নলা বন্দুক উদ্ধার করে।
এসময় আহত ব্যক্তিকে উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
এব্যাপারে কক্সবাজারের ৩৪ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আলী হায়দার আজাদ আহমেদ জানান, এ ঘটনায় বিজিবির দুই সদস্য আহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ইয়াবা ও অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে। এ ব্যাপারে আইনানুগ কার্যক্রমের প্রক্রিয়া চলছে।
Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: ইয়াবা, গুলিবিনিময়, বন্দুকযুদ্ধ
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

8 + eighteen =

আরও পড়ুন