চকরিয়ায় ঔষধ কোম্পানি এমআর’র আত্মহত্যা

fec-image

কক্সবাজারের চকরিয়ায় গলায় ফাঁস লাগিয়ে মনিরুল হক (৩০) নামের এক যুবক আত্মহত্যা করেছে। নিহত যুবক একমি ঔষধ কোম্পানি এমআর হিসেবে কর্মরত ছিল।

বুধবার (২৪ফেব্রুয়ারি) রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলার সাহারবিল ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের মাইজঘোনা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত ঔষধ কোম্পানি এমআর মনিরুল হক বরইতলী ইউনিয়নের ফতেহ আলী সিকদার পাড়া এলাকার আনোয়ার হোসেনের ছেলে। খবর পেয়ে চকরিয়া থানা পুলিশ রাত ১০টার দিকে নিহতের লাশ উদ্ধার করেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, বরইতলী ইউনিয়নের ফতেহ আলী সিকদার পাড়া এলাকার আনোয়ার হোসেনের ছেলে মনিরুল হক একমি কোম্পানিতে (ঔষধ) এমআর হিসেবে কর্মরত রয়েছে। ঔষধ কোম্পানিতে চাকুরি করার সুবাধে সে তার পরিবার নিয়ে সাহারবিল ইউনিয়ন্থ মাইজঘোনা এলাকার আবুল খায়ের মানিকের বাড়িতে বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতো। ঘটনার দিন তার স্ত্রী-সন্তান বাসায় না থাকার সুবাধে পরিবারের অজান্তে ঘরের চালার সাথে গলায় রশি প্যাচিয়ে আত্মহত্যা করে যুবক মনিরুল। খবর পেয়ে চকরিয়া থানা পুলিশের এসআই কামরুজ্জামান নেতৃত্বে সঙ্গীয় পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহতের মরদেহ ঝুলন্তবস্থা থেকে উদ্ধার করেন। সাহারবিল ইউনয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান এনামুল হক আত্মহত্যার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

চকরিয়া থানার উপপরিদর্শক (এস আই) কামরুজ্জামান বলেন, সাহারবিল মাইজঘোনা এলাকায় এক যুবক আত্মহত্যার খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহত যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়। লাশ উদ্ধারের পর নিহত যুবকের সুরুতহাল রিপোর্ট তৈরি করে তাকে জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে বলেও তিনি জানান।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

20 − 5 =

আরও পড়ুন