টেকনাফের নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পে ৫৪ ভরি স্বর্ণালংকার চুরি, ২০ ভরি উদ্ধার, আটক ৪

fec-image

টেকনাফের নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পে একটি ঘরে গচ্ছিত ৫৪ ভরি স্বর্ণ, নগদ ৫০ হাজার টাকা, একটি কম্পিউটার এবং একটি DSLR ক্যামেরা চুরি হয়েছে।

নয়াপাড়া ক্যাম্পে ব্লক-ই, শেড-৯০৮/২, MRC- ৬০১০৮ তে বসবাসরত আবুল কাশেমের পুত্র মো. সুলতান (৩৫) এর বাড়ি থেকে এসব স্বর্ণালংকার চুরি হয়। অভিযোগ পেয়ে এপিবিএন পুলিশ ২০ ভরি স্বর্ণ উদ্ধার করেছে। এ ঘটনায় জড়িত চারজনকে আটক করা হয়েছে।

জানা যায়, ০১ মে দুপুর দেড়টায় মো. সুলতানের বাড়িতে চার ভাইবোনের গচ্ছিত ৫৪ ভরি স্বর্ণসহ অন্যান্য মালামাল চুরি হয়। চুরির বিষয়ে ক্যাম্পের এপিবিএন পুলিশকে অভিযোগ দায়ের করলে এসব চুরির সন্দেহে ব্লক-এফ/৮ সৈয়দুর রহমানের পুত্র আব্দুল্লাহকে আটক করে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে সে চুরির কথা স্বীকার করে। এক পর্যায়ে নিজ ঘর থেকে ২ ভরি স্বর্ণ বের করে দেয় এবং এ চুরির সাথে জড়িত ব্লক-ডি, শেড-৭৩৫/৪, MRC-১২০৬৪ নং এর ফজর আহম্মদের পুত্র নুরুল কবির (৫৩), ব্লক-এফ/৮, আব্দুল্লাহর স্ত্রী রহিমা খাতুন (৩৫), ব্লক- ই, MRC- ৬৪৩২ রশিদ আহম্মদের পুত্র জাফর (২৬), দুদু মিয়ার পুত্র হারুন (২৪), কক্সবাজার সদরের ঘোনার পাড়ার হাজী সৈয়দুর রহমানের পুত্র নুর আলম (৩৫) গনের নাম স্বীকার করে।
উক্ত স্বীকারোক্তি মতে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য অভিযুক্তদের ক্যাম্পে নিয়ে আসে এবং বিষয়টি টেকনাফ থানা পুলিশকে অবহিত করে।

পরে টেকনাফ থানা পুলিশ ও নয়াপাড়া এপিবিএন পুলিশের যৌথ জিজ্ঞাসাবাদে আরও ১৮ ভরি স্বর্ণের কথা স্বীকার করলে তা উদ্ধার করে। এই ঘটনার সাথে জড়িত থাকার প্রাথমিকভাবে সাক্ষ্য প্রমান পেয়ে আব্দুল্লাহ, আব্দুল্লার স্ত্রী রহিমা খাতুন, নুর আলম, নুরুল কবির কে গ্রেপ্তার পূর্বক বাদীসহ টেকনাফ থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে ।

কক্সবাজার ১৬ এপিবিএন অধিনায়ক তারিকুল ইসলাম তারিক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আটক, চুরি, টেকনাফ
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

19 + four =

আরও পড়ুন