টেকনাফে চুরির অভিযোগে যুবককে বেঁধে ৯ ঘন্টা নির্যাতন

fec-image

টেকনাফে চুরির অভিযোগে মধ্যযুগীয় কায়দায় নুরুল আমিন নামের এক যুবককে বেধে ৯ ঘন্টা নির্যাতন করা হয়েছে। শনিবার (২৪ জুলাই) ভোরে টেকনাফের হোয়াইক্যং ইউনিয়নের নয়াপাড়া বটতলী এলাকায় এমন ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটে ।

আহত যুবক স্থানীয় খুরশেদ আলমের ছেলে। পেশায় তিনি একজন জেলে হওয়ায় চিকিৎসা ও আইনী সেবা বঞ্চিত রয়েছে এখনো।

আহত ও স্থানীয়দের অনেকে জানান, প্রতিনিদিনের মতো মৎস্যঘের থেকে মাছ শিকার করে ফেরার পথে বৃষ্টির কারণে ইদ্রিসের বাড়ির সামনে আশ্রয় নেন নুরুল আমিন। এমন সময় দা কিরিচ নিয়ে হামলা করে চিহ্নিত দুর্বৃত্তরা। এতেও তারা ক্ষান্ত হননি, প্রধান সড়কের পাশে বিদ্যুতের খুটিতে বেঁধে সাড়ে ৯ ঘন্টা নানাভাবে নির্যাতন চালায়। পরে স্থানীয়দের অনেকে এগিয়ে তাকে উদ্ধার করেন। পাশাপাশি ইউপি সদস্যও উপস্থিত হয়ে তাকে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেন।

আহতের স্ত্রী শাহিনুর আক্তার জানান, আমার স্বামী একজন জেলে। মাছ শিকার করে বাড়ি ফেরার পথে বৃষ্টির কারণে স্থানীয় ইদ্রিসের বাড়িতে অবস্থান নিলে নুরুল আলমের ছেলে ইদ্রীস তার স্ত্রী আয়েশা খাতুন, তাজুল মুল্লুুকের ছেলে বাবুল ও হেলাল মিলে দা কিরিচ দিয়ে হামলা করেন। সেই সাথে সাড়ে ৯ ঘন্টা বিদ্যুতের খুটির সাথে বেঁধে রেখে নির্যাতন করা হয়। তিনি আরও বলেন, টাকার অভাবে চিকিৎসা ও আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারছেন না। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা পেতে দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন আহতরা।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুল গাফ্ফার উভয়পক্ষের বরাত দিয়ে জানান, মাছ শিকার করে আসার পথে নির্মমভাবে হামলার শিকার হয় তারা। সেই সাথে চুরি করতে ঢুকায় নানা নির্যাতন চালায় হামলাকারীরা।

হোয়াইক্যং পুলিশ ফাঁড়ীর ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপপরিদর্শক মাহমুদুল হাসান জানান, এ ব্যাপারে কেউ অভিযোগ করেননি। তারপরেও গুরুত্বের সঙ্গে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four + 16 =

আরও পড়ুন