টেকনাফে বিয়ে বাড়িতে ডাকাতি, গ্রেফতার ১

fec-image

কক্সবাজার টেকনাফের হোয়াইক্যং খারাংখালী কম্বনিয়া এলাকায় বিয়ে বাড়িতে ডাকাতি ও অপহরণের ঘটনা ঘটেছে। এসময় নববধূ ও বিয়ে বাড়ির অতিথিদের কাছ থেকে ৫ ভরি স্বর্ণ অলংকার, ফোন ও টাকা পয়সা লুটসহ ব্যাপক তাণ্ডব চালিয়েছে সংঘবদ্ধ ডাকাতদল। এছাড়া ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে মাহবুব রহিম নামের ১১ বছর বয়সী শিশুকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। পরে ৪ লাখ টাকা মুক্তিপণ দিয়ে তাকে উদ্ধার করা হয়।

শনিবার (১০ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাত ১ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে মহিম নামের একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তিনি হ্নীলা মৌলভীবাজার নাইক্ষংখালীর সিরাজ আহম্মদের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, রাত ১টার দিকে চিৎকার শুনে ছুটে আসলে দেখে ডাকাত দল ডাকাতি করে বিয়ে বাড়ির মালিকের ছোট ছেলেকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। ডাকাতদলের পেছনে এলাকাবাসী ছুটে গেলে ডাকাত দল ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে। তারা ৪ লাখ টাকা মুক্তিপণ দিয়ে অপহৃত মাহবুব রহিমকে উদ্ধার করে নিয়ে আসে।

অপহরণের স্বীকার মাহবুব রহিম বলেন, আমাকে নিয়ে গিয়ে চোখ বন্ধ করে মারধর করে এবং পাহাড় থেকে জোক লাগিয়ে দেয়।

এই বিষয়ে হোয়াইক্যং পুলিশ ফাঁড়ির আইসি যায়েদ হাসান জানান, এই ঘটনায় একটি অপহরণ মামলা দায়ের হয়। জড়িত সন্দেহে মহিম ডাকাতকে গ্রেফতার করা হয়। তার বিরুদ্ধে টেকনাফ থানায় চাঁদাবাজি, দখল, ডাকাতিসহ অর্ধডজন মামলা রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: গ্রেফতার, টেকনাফ, ডাকাতি
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 − 9 =

আরও পড়ুন