তারুণ্যকে প্রাধান্য দিয়ে মাটিরাঙা উপজেলা আ’লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন

fec-image

একঝাঁক সাবেক ছাত্রনেতাসহ তরুণ নেতৃত্বকে প্রাধান্য দিয়ে সম্মেলনের দুই বছর পর খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের ৭১ সদস্য বিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন দিয়েছে খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামী লীগ

গতকাল মঙ্গলবার (২১ ডিসেম্বর) খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি স্বাক্ষরিত এ কমিটি অনুমোদনের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অভিনন্দনে ভাসছেন মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের নতুন নেতৃত্ব।

নতুন কমিটিতে ৯ জনকে সহ-সভাপতি করা হয়েছে। তিন জন করে যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক ও সাংগঠনিক সম্পাদক করা হয়েছে। কমিটিকে চমক হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে সাবেক ছাত্রলীগের নেতৃত্ব দেয়া একঝাঁক নেতা।

এর আগে পূর্বেও কমিটির মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ার চার বছর পর ২০১৯ সালের ১২ অক্টোবর মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সম্মেলনের একমাস পরে ১২ নভেম্বর এম হুমায়ুন মোরশেদ খানকে সভাপতি ও সুবাস চাকমাকে সাধারণ সম্পাদক ঘোষনা করেন খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি। এ সম্মেলনের প্রায় দুই বছর পর পূর্ণাঙ্গ কমিটি পেল মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগ

কমিটিতে সহ-সভাপতি হিসেবে স্থান পেয়েছেন খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য হিরন জয় ত্রিপুরা, মাটিরাঙ্গা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. রফিকুল ইসলাম, ফজলুল হক সরকার, জয়নাল আবেদীন খোন্দকার, মো. আমান উল্যাহ ভুইয়া, মো. আব্দুল মজিদ, আতুশী মারমা, এসএম কামাল ও ওয়ালী উল্যাহ। যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক করা হয়েছে মো. তাজুল ইসলাম, মো. এনামুল হক আলীম ও সদু অং মারমা

সাংগঠনিক সম্পাদক মনোনীত হয়েছেন মো. আলী হোসেন, মো. জসিম উদ্দীণ ভুইয়া, মো. কামরুল হাসান আমান। চমক হিসেবে কমিটিকে দপ্তর সম্পাদক মনোনীত হয়েছেন সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মোহাম্মদ আলী।

প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মো. রুহুল আমিন, আইন বিষয়ক সম্পাদক তারেন কুমার ত্রিপুরা, কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ভাগ্যধন ত্রিপুরা, তথ্য ও গবেষনা সম্পাদক মো. আলমগীর হোসেন, ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক বিমল চন্দ্র ত্রিপুরা, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক মাও, শফিউল বশর, বন ও পরিবেশন বিষয়ক সম্পাদক রাখাল চন্দ্র ঘরজা, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক কৃত্তিময় চাকমা, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক আসমা সরওয়ার, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আমিরুল ইসলাম, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক মো. দেলোয়ার হোসেন, শিক্ষা বিসয়ক সম্পাদক মো. দেলোয়ার হোসেন রিপন, শ্রম বিষয়ক সম্পাদক মো. আলী মিয়া, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক সমীর চন্দ্র বণিক, স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. আসলাম হোসেন, সহ-দপ্তর সম্পাদক মো. সাইফুল ইসলাম রানা, সহ-প্রচার সম্পাদক জুয়েল চাকমা ও কোষাধ্যক্ষ পলাশ চৌধুরী। কমিটিতে সদস্য হিসেবে রাখা হয়েছে ৩৫ জনকে।

বিতর্কিত ব্যক্তিরা নতুন কমিটিতে সুযোগ পায়নি জানিয়ে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সুবাস চাকমা বলেন, নবীন-প্রবীনের সমন্বয়ে পুর্ণাঙ্গ কমিটিতে একঝাঁক ছাত্রলীগের সাবেক নেতা স্থান পেয়েছে। পরীক্ষিত ও দক্ষ কর্মীরা কমিটিতে পদ পেয়েছেন জানিয়ে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম হুমায়ুন মোরশেদ খান বলেন সবমিলিয়ে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামীলীগ একটি শক্তিশালী কমিটি পেয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fifteen + 17 =

আরও পড়ুন