দাঁত ও মাড়ির ক্ষতি করে টুথপিক

fec-image

শরীরের অন্যান্য অঙ্গের মতো দাঁতের যত্ন নেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। সেজন্যই বলা হয়, দাঁত থাকতে দাঁতের মর্যাদা বোঝে না।

খাওয়ার পরে অনেকেই মুখের ভেতর পরিষ্কার করার জন্য টুথপিক বা খড়কে ব্যবহার করেন। এতে আখেরে লাভের চেয়ে ক্ষতিই বেশি হয়।

টুথপিক ব্যবহারের ফলে মুখের ভেতর ক্ষত পর্যন্ত হতে পারে। তাই এখন থেকে টুথপিকের ব্যবহার বন্ধ করাই আপনার জন্য শ্রেয় হবে। যেসব কারণের কথা মাথায় রেখে টুথপিক আর ছোঁবেন না, সেগুলো একবার পড়ে নিন।

দাঁতের মাঝখানে গর্ত

টুথপিকের মাত্রাতিরিক্ত ব্যবহারে দাঁতের মাঝখানে ব্যবধান বেড়ে যেতে পারে। এতে করে চোয়ালে যেমন ব্যথা হওয়ার সম্ভাবনা বাড়ায়, তেমনিভাবে দাঁতের মাঝখানে খাবারও বেশি আটকে যায়।

দাঁত দুর্বল

ঘনঘন খড়কে ব্যবহার করলে দাঁতের মূল দুর্বল হয়ে যায়। দাঁতের গোড়ার টিস্যু ক্ষতিগ্রস্ত হয় টুথপিকের কারণে।

মাড়ি থেকে রক্তপাত

মাড়ি থেকে রক্তপাতের কারণ হতে পারে টুথপিকের আঘাত। এছাড়া অন্য কোনো কারণে মাড়িতে ক্ষতের সৃষ্টি হলে, টুথপিকের আঘাতে সে ক্ষত আরও বাড়তে পারে।

দুপুরে ও রাতে খাওয়ার পরে ব্রাশ করে ফেললে আর টুথপিকের প্রয়োজন হয় না। এছাড়া এর ফলে দাঁতের গোড়ায় গর্তও তৈরি হওয়ার আশঙ্কা থাকে না। মাড়ি ভালো রাখতে লবণ ও গরম জল ব্যবহার করে কুলকুচা করা যেতে পারে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

1 × 1 =