পাকা আম খাওয়ার আগে যা করবেন

fec-image

সামানে আসেছে পাকা আমের মৌসুম। তার আগেই বাজারে উঠতে শুরু করেছে পাকা আম। তবে যখনই আপনি কিনুন না কেন, খাওয়ার আগে অবশ্যই আধা ঘণ্টা পানিতে ভিজিয়ে রাখবেন।

আম পানিতে ভিজিয়ে রাখলে শুধু ধুলা-বালুই পরিষ্কার হবে না বরং এভাবে আম খাওয়ার ৫টি বৈজ্ঞানিক কারণও আছে। অনেক স্বাস্থ্য সমস্যা থেকে নিজেকে বাঁচাতে এই কৌশলে আম খেতে পারেন। চলুন তবে জেনে নিন আম খাওয়ার আগে পানিতে ভিজিয়ে রাখলে কী কী সুবিধা পাবেন-

*ফাইটিক অ্যাসিড থেকে মুক্তি মেলে পানিতে ভিজিয়ে আম খেলে। ফাইটিক অ্যাসিড হলো এক ধরনের পুষ্টি, যা শরীরের জন্য ভালো ও খারাপ উভয়ই হতে পারে। এটি একটি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট হিসেবে বিবেচিত।

যা শরীরকে আয়রন, জিঙ্ক, ক্যালসিয়াম ও অন্যান্য খনিজগুলো শোষণে বাধা দেয়। এই অ্যাসিডের কারণে শরীরে মিনারেলের ঘাটতি হয়। শুধু আম নয়; অন্যান্য ফল, শাক-সবজি ও বাদামেও আছে এই প্রাকৃতিক অণু। ফাইটিক অ্যাসিড শরীরে তাপ তৈরি করে। পানিতে ভিজিয়ে রাখলে তা নির্গত হয়ে বেরিয়ে যায়।

*ক্ষতিকর বিভিন্ন কীটনাশক আম ও এর গাছে ব্যবহার করা হয়। যা শরীরের জন্য খুবই ক্ষতিকর। এ বিষয়ে ভারতের আয়ুর্বেদ বিশেষজ্ঞ আশুতোষ গৌতম এনডিটিভির প্রতিবেদনে জানান, আম পানিতে ভিজিয়ে না খেলে অ্যালার্জি, ত্বকের জ্বালা বা অন্যান্য গুরুতর সমস্যা হতে পারে। অনেক সময় আম ভিজিয়ে না খেলে মাথাব্যথা, বমি বমি ভাবের মতো সমস্যাও হয়।

*অনেকেরই আম খেলে ব্রণ বা ত্বকের বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। এ ছাড়া কোষ্ঠকাঠিন্য, মাথাব্যথা বা পেট সংক্রান্ত অন্যান্য শারীরিক সমস্যা মোকাবিলা করতে হয়। এমন অবস্থায় কিছুক্ষণ পানিতে ভিজিয়ে রাখলে তাপ থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

ভারতীয় সেলিব্রেটি পুষ্টিবিদ রুজুতা দিওয়েকর টুইটারে একটি পোস্ট শেয়ার করে বলেছেন, আম খাওয়ার আগে কমপক্ষে ৩০ মিনিট পানিতে ভিজিয়ে রাখতে হবে। এরপর খাওয়া ত্বকের জন্য ভালো হবে।

*আম খেলে শরীরের তাপমাত্রাও বেড়ে যায়, ফলে থার্মোজেনিক তৈরি হয়। তবে আম পানিতে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রেখে খেলে এ সমস্যা হবে না। আসলে থার্মোজেনিকের উৎপাদন বাড়ার কারণে ব্রণ, কোষ্ঠকাঠিন্য, মাথাব্যথার মতো সমস্যা তৈরি হয়।

*এই পদ্ধতিতে আম খেলে ওজনও কমবে। আসলে আমে ফাইটোকেমিক্যাল থাকে। যখন আম ভিজিয়ে রাখা হয়; তখন এর ঘনত্ব কমে যায়। এটি প্রাকৃতিকভাবে চর্বি বার্ন করতে সাহায্য করে।

সূত্র: দ্য বেটার ইন্ডিয়া

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

6 + 15 =

আরও পড়ুন