পালংখালীতে এলজিইডির প্রকল্পে অনিয়ম:কাজ বন্ধ করলো ইউপি চেয়ারম্যান

fec-image
১০লক্ষ টাকার প্রকল্পের বরাদ্দ এডিবি টেন্ডারকৃত জামতলী হাফেজ এজাহারের উত্তর পাশে চিকন ছড়া সংলগ্ন ও টেকনাফ সড়ক হতে শুক্কুর মেম্বারের বাড়ি পর্যন্ত এইচবিবিআই দ্বারা রাস্তা সংস্কার ও গাইড ওয়াল নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগ তুলেছে গ্রামবাসী।
এ নিয়ে ইতোমধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও সমালোচনার ঝড় বয়ে গেছে। অনেকেই অনিয়মের অভিযোগ করে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।
প্রত্যেক্ষদর্শীদের মতে, ঐ রাস্তাটি ১০ফুট প্রসস্থ হলেও টেন্ডারবাজরা কিছু কিছু জায়গায় প্রসস্থতা ৭ ফুট করেছে। খুব দূর্বল ইট ও কোনো বালি ছাড়াই সড়কে ইট বসানো হয়েছে। এছাড়া পার্শ্ববর্তী গাইড ওয়ালে পর্যাপ্ত কংকর, বালি ও সিমেন্ট ব্যবহার না করে খুবই দূর্বলভাবে নির্মাণ কাজ চালাচ্ছে। বালির পরিবর্তে পুরাতন ঘর ভাঙ্গা মাটি ব্যবহার করছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
সোমবার (৩০ মার্চ) সকালে ঐ এলাকার এইচ এম ওসমান নামের একজন সচেতন নাগরিক বিষয়টি দেখে স্থানীয় ০৫ নং পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এম. গফুর উদ্দিন চৌধুরীকে অবহিত করেন।
পরে বিকেলের দিকে ৫নং পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এম. গফুর উদ্দিন চৌধুরী সরেজমিনে দেখতে পেলে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত হয়।
পরিদর্শনকালে আরও উপস্থিত ছিলেন ৫নং পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের সচিব  আবু সুফিয়ান, প্যানেল চেয়ারম্যান মোজাফফর আহমদ (সও) ও ৬ নং ওয়ার্ডের মেম্বার তোফায়েল আহমদ।
এ বিষয়ে ৫নং পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এম. গফুর চৌধুরী বলেন,”ঐ এলাকার একাধিক মানুষ বিষয়টি নিয়ে আমাকে অভিযোগ করে। আমি সরেজমিনে দেখে বিষয়টি নিশ্চিত হই  এবং সাথে সাথে কাজটি বন্ধ করার নির্দেশ দেই। তাদের কাজে অনিয়ম ধরা খাওয়ার কারণেই কাজ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।
রাস্তা ও গাইড ওয়াল নির্মাণে অনিয়ম দেখা গেছে। গাইড ওয়াল যেখানে দেওয়ার কথা সেখানে না দিয়ে বাইরে দিচ্ছে। বালি না দিয়ে ঘর ভাঙ্গার মাটি দিয়ে কাজ করছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
ইতোমধ্যে বিষয়টি আমি দায়িত্ব প্রাপ্ত প্রকৌশলীকে অবহিত করেছি। তিনি বিষয়টি নিয়ে কঠোর পদক্ষেপের আশ্বাস দিয়েছেন।
Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

16 − 1 =

আরও পড়ুন