বাজে মাঠের জন্য সেরাটা দিতে পারছেন না মেসি

fec-image

ভেনেজুয়েলাকে ২-০ গোলে হারিয়ে কোপা আমেরিকার সেমিফাইনালে উঠেছে আর্জেন্টিনা। গোল করেছেন ইন্টার মিলানের স্ট্রাইকার লওতারো মার্টিনেজ ও রিয়াল বেতিসের মিডফিল্ডার জিওভান্নি লো সেলসো। গোটা টুর্নামেন্টে নিজের পারফরম্যান্স নিয়ে সন্তুষ্ট হতে পারছেন না মেসি।

আর্জেন্টিনার ইতিহাসে লিওনেল মেসিই সর্বোচ্চ গোলদাতা। এখনো কোনো ম্যাচ জেতার জন্য মেসি-ম্যাজিকের অপেক্ষা করে দলটি। মেসি জ্বলে উঠলে আর্জেন্টিনাও জ্বলে ওঠে, এটাই যেন স্বাভাবিক। কিন্তু এবারের কোপা আমেরিকায় সেটা হচ্ছে কি? হচ্ছে না। যে কারণে গ্রুপ পর্ব পেরোতেও আর্জেন্টিনার অনেক কষ্ট হয়েছে। কাল রাতে কোপার কোয়ার্টার ফাইনালে ভেনেজুয়েলার বিপক্ষেও মেসি ছিলেন নিষ্প্রভ। সব মিলিয়ে এবারের কোপায় যে স্বরূপে আসতে পারেননি, মেসি নিজেও বুঝেছেন সেটা। ম্যাচ শেষে সেটাই জানিয়েছেন।

গত রাতে জিওভান্নি লো সেলসো ও লওতারো মার্টিনেজের কাঁধে চড়ে সেমিতে উঠেছে আর্জেন্টিনা। মেসিকে দেখা যায়নি মেসির মতো। কিন্তু কেন হচ্ছে এটা? মেসি নিজেই খুঁজে বের করেছেন কারণ। ব্রাজিলের মাঠগুলো একদমই খেলার উপযুক্ত না বলে জানিয়েছেন তিনি, ‘পারফরম্যান্সের দিক দিয়ে এটা যে আমার সেরা কোপা আমেরিকা, বলব না সেটা। যেসব মাঠে খেলছি, সেসব মাঠে খেলা আসলেই অনেক কঠিন। ভালো গতিশীল ফুটবল খেলার জন্য উপযুক্ত নয় মাঠগুলো। মাঠের অবস্থা অনেক খারাপ।’

আর্জেন্টিনা সাধারণত ‘ওয়ান-টাচ ফুটবল’ খেলে অভ্যস্ত। আর এই মাঠগুলোয় এভাবে খেলতে পারছেন না মেসিরা। ফলে, সমস্যা তো হবেই!

মাঠ নিয়ে মেসির অভিযোগ আজকের নতুন না। গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে কাতারের বিপক্ষে খেলতে নেমেও একই সমস্যা পড়েছিল আর্জেন্টিনা, তখনো একই অভিযোগ করেছিলেন মেসি। কোপার মাঠ যে একদমই খেলার অনুপযুক্ত, সে ব্যাপারে মেসির সঙ্গে সুর মিলিয়েছেন ব্রাজিল কোচ তিতেও। প্যারাগুয়ের বিপক্ষে পেনাল্টি শুটআউটে কোয়ার্টার ফাইনাল জিতে তিতে সকল ক্ষোভ ঝাড়েন মাঠের ওপর, ‘এই মাঠে কেউ টানা তিনটা পাস পর্যন্ত দিতে পারে না!’

কাল ম্যাচ জেতার পেছনে মেসি কৃতিত্ব দিয়েছেন দলের রক্ষণ করার মানসিকতাকে, ‘ভেনেজুয়েলা যখন গোল করতে গিয়েছে, আমরা ওদের জায়গা ছেড়ে দিইনি আক্রমণ করার জন্য। ম্যাচটা বেশ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ হয়েছে। আমরা সব সময় প্রতি-আক্রমণ করার চেষ্টা করেছি।’

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আর্জেন্টিনা, কোপা আমেরিকা, লিওনেল মেসি
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five × 5 =

আরও পড়ুন