বান্দরবান আদালতের নির্দেশে ফেরত পেলো সেই ১৩টি গরু

fec-image

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্ত থেকে পুলিশের অভিযানে উদ্ধার হওয়া ১৩টি গবাদি পশু অবশেষে ফেরত পেয়েছেন গরুর মালিক কামাল মিয়া।

সম্প্রতি বান্দরবান জেলা ও দায়রা জজ আদালত এসব গরু কামাল মিয়ার জিম্মায় প্রদানের জন্য নির্দেশ প্রদান করেছেন। বিজ্ঞ আদালতের আদেশের প্রেক্ষিতে ২১ জুলাই থানা থেকে ফেরত নিয়েছেন গরুর মালিক কামাল মিয়া।

জানা গেছে, গত ৬ জুলাই নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার সদর ইউনিয়নের চেরারকুল গ্রাম থেকে ১৩টি গবাদি পশু জব্দ করেছিল নাইক্ষ্যংছড়ি থানা পুলিশ। ওই সময় পুলিশ বলেছিল- শুল্ক ফাঁকি দিয়ে মিয়ানমার থেকে গরু আনায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে চোরাচালানের গরুগুলো জব্দ করেছিল তারা।

কিন্তু আটকের পর আসামিকে আদালতে হাজির করা হলে আইনজীবির মাধ্যমে যুক্তিতর্ক শেষে ওই দিনই কামাল মিয়ার জামিন মঞ্জুর করেন বান্দরবান অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিচারক খোরশেদ আলম।

এই বিষয়ে কামাল মিয়ার আইনজীবি শামসুল আলম জানান, বিজ্ঞ আদালত সাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতে কামাল মিয়ার জামিন মঞ্জুর করেছেন এবং পরবর্তী জেলা ও দায়রা জজ আদালতের আরেকটি আদেশে পুলিশের জব্দকৃত গরুগুলো কামাল মিয়া ফেরত পান।

এই প্রসঙ্গে কামাল মিয়া আদালতের আদেশের প্রতি সন্তুষ্টি প্রকাশ করে বলেন, স্থানীয় কুচক্রি মহল ভুল তথ্য সরবরাহ করে তার গরুগুলো আটক করা হয়েছিল। এতে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রহস্ত হওয়ার পাশাপাশি সম্মানহানিও হয়েছে তার। কামাল মিয়া আরও জানান, দীর্ঘদিন ধরে তিনি এলাকার বিভিন্ন বিষয়ে বিজিবি-পুলিশকে সহায়তা করে আসছেন। যার কারণে কুচক্রি মহলটি ঈর্ষান্বিত হয়ে তার ক্ষতি করার চেষ্টা করেছে মাত্র।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 × 4 =

আরও পড়ুন