ভারী বর্ষণে আধাপাকা মানিকছড়ি-যোগ্যাছোলা সড়কে ধস

fec-image

মানিকছড়ি উপজেলা সদর থেকে যোগ্যাছোলা যাওয়ার আভ্যন্তরীণ সড়কের গাড়ীটানা এলাকায় ভারী বৃষ্টির পানি গড়িয়ে রাস্তা দেবে এলাকার যোগাযোগ ব্যবস্থা সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন ! অন্যদিকে অপর দুইটি ফাঁড়ি সড়কে সংস্কার কাজ চলমান থাকায় পুরো ইউনিয়নবাসী উপজেলার সাথে স্বাভাবিক চলাচল বিচ্ছিন্ন রয়েছে।

উপজেলা সদর থেকে ৩নং যোগ্যাছোলা ইউনিয়নে যাতায়াতে আধাপাকা ‘গাড়ীটানা ভায়া যোগ্যাছোলা-কালাপানি’ সড়কের গাড়ীটানা বাজারের ৩শ ফুট পশ্চিমে (জাহাঙ্গীর মেম্বারের বাড়ী সংলগ্ন) সড়কের ঢালু অংশে ভারী বৃষ্টির পানি গড়িয়ে রাস্তার ইট, কংক্রিট ও পাথর সরে গিয়ে দেবে যায়। এ অবস্থায় গত ২/৩ দিন যাবত সড়কে মোটরসাইকেল, সিএনজি, অটোরিক্সা কিছুই চলাচল করতে না পারায় জনভোগান্তি বাড়তে থাকে। এছাড়া ওই ইউনিয়নে যাতায়াতের অপর দুইটি ফাঁড়ি সড়ক মানিকছড়ি-চেঙ্গুছড়া-যোগ্যাছোলা ও তিনটহরী-পাক্কাটিলা-যোগ্যাছোলা সড়কে উন্নয়ন কাজ (আধাপাকা) চলমান থাকায় বর্তমানে গাড়ি চলাচল বন্ধ রয়েছে।

ফলে ইউপি’র ৯নং ওয়ার্ড সদস্য মো. জয়নাল আবেদীন ও ৮নং ওয়ার্ড সদস্য মো. আবদুল মতিন বিষয়টি উপজেলা চেয়ারম্যান মো. জয়নাল আবেদীনকে অবহিত করেন এবং নিজেদের অর্থায়নে ক্ষতিগ্রস্ত সড়কে ইট, কংক্রিট ও বালু ফেলে অস্থায়ীভাবে জনচলাচল স্বাভাবিক করার উদ্যোগ নিয়েছেন। ইউপি চেয়ারম্যান ক্যয়জরী মহাজন বলেন, এই মূর্হূত্বে যোগ্যাছোলা ইউনিয়নবাসীর চলাচল স্বাভাবিক রাখতে এই সড়কের বিকল্প নেই। যেহেতু অন্য দুইটি আভ্যন্তরীণ সড়কে উন্নয়ন কাজ চলছে। উপজেলা চেয়ারম্যানের পরামর্শে ইউপি সদস্যরা নিজ উদ্যোগে সড়কে জনচলাচল স্বাভাবিক করতে দ্রুত কাজ করছেন। আশা করছি বৃহস্পতিবারের মধ্যে অস্থায়ীভাবে সড়কে অন্তত হাটাচলা করার পরিবেশ সৃষ্টি হবে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four + twenty =

আরও পড়ুন