ভালবেসে বাঙালী যুবক কমলের হাত ধরে পালালেও শেষ রক্ষা হলো না সোনাবী চাকমার

150751_137518686379416_969652262_n-300x200

সিনিয়র স্টাফ রিপোর্টার :

ভালেবেসে বিয়ে করে ঘর বাঁধার স্বপ্ন নিয়ে বাঙালী যুবক প্রেমিক কমলের হাত ধরে ঘর ছাড়লেও শেষ রক্ষা হয়নি প্রেমিকা সোনাবী চাকমার।

টানা তিন বছর  ভালবেসে মন দেয়া-নেয়ার পর বিয়ে করার শপথ নিয়ে ঘর ছাড়লেও নিজেদের গন্তব্যে যাওয়ার আগেই মাটিরাঙ্গা থানা পুলিশের হাতে আটক হয়েছে ভিন্ন ধর্মের এ প্রেমিক যুগল। দু‘জনকেই মাটিরাঙ্গা থানায় পুলিশ নিজেদের হেফাজতে নিয়ে যায়। তবে পুলিশের আগে স্থানীয় উপজাতীয় যুবকরা তাদের আটক করে বলে জানা যায়।

জানা গেছে, টানা তিন বছরের প্রেম করার পর পরস্পর বিয়ে করবে বলে প্রেমিক পানছড়ির লোগাং এর বাসিন্দা অবসর প্রাপ্ত স্কুল শিক্ষক খরভল্লব চক্রবর্তীর ছেলে পানছড়ি কলেজের ছাত্র কমলাশীষ চক্রবর্তীর (২০) হাত ধরে ঘর ছাড়ে পানছড়ির লোগাং এর বাবুরাপাড়ার চন্দ্র চাকমার মেয়ে লোগাং বাজার উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর ছাত্রী সোনাবী চাকমা (১৬)। খাগড়াছড়ি বাস টার্মিনাল থেকে চট্টগ্রামের বাসে উঠে মাটিরাঙ্গা বাজারে আসা মাত্র স্থানীয় উপজাতীয় যুবকরা আটক করে বোরকাপড়া সোনাবী চাকমাকে।  প্রেমিক যুবক কমল হিন্দু ধর্মের। 

পরে মাটিরাঙ্গা থানা পুলিশ একই গাড়ি থেকে আটক করে প্রেমিক কমলাশীষ চক্রবর্তীকে। বিষয়টি নিয়ে দিনভর উভয়ের পরিবারের মধ্যে দেনদরবারের পর প্রেমিক যুগলের স্ব স্ব পিতার জিম্মায় তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হয়।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: চাকমা, পার্বত্যনিউজ, বাঙালী
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 × 5 =

আরও পড়ুন