মাটিরাঙ্গায় হতদরিদ্র ও কর্মহীন মানুষের পাশে আওয়ামী লীগ

fec-image

বৈশ্বিক মহামারি কোভিড-১৯ এর প্রাদুর্ভাবে পুরো বিশ্ব দিশেহারা। সেই সাথে দিশেহারা পুরো দেশ। প্রতিদিন রেকর্ড হচ্ছে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা। প্রানঘাতি করোনার সংক্রমন এড়াতে বিদ্যমান লকডাউনে কর্মহীন হয়ে পড়েছে পাহাড়ি জনপদ মাটিরাঙ্গার নিম্ন আয়ের মানুষ। নিম্ন আয়ের কর্মহীন এক হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা প্রদান করবে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগ

মঙ্গলবার (৬ জুলাই) সকাল ১০টান দিকে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে খাদ্য সহায়তা বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন ভারত প্রত্যাগত শরণার্থী বিষয়ক টাস্কফোর্সের চেয়ারম্যান (প্রতিমন্ত্রী পদমর্যাদা) কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি। খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের অর্থায়নে এসব খাদ্য সহায়তা বিতরণ করা হয়।

মাটিরাঙ্গা উপজেলা ও পৌর আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠনের ব্যবস্থাপনায় বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মংসেপ্রু চৌধুরী অপু, পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য মংক্যচিং চৌধুরী, এ্যাড. আশুতোষ চাকমা, হিরনজয় ত্রিপুরা, পার্থ ত্রিপুরা জুয়েল, শতরূপা চাকমা, মাটিরাঙ্গা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. রফিকুল ইসলাম, মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম. হুমায়ুন মোরশেদ খাঁন, সাধারণ সম্পাদক সুবাস চাকমা, মাটিরাঙ্গা পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. হারুনুর রশীদ ফরাজী প্রমুখ ছাড়াও আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

হতদরিদ্র ও কর্মহীন মানুষের মাঝে খাদ্য সহায়তা বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বেধন করেন ভারত প্রত্যাগত শরনার্থী বিষয়ক টাস্কফোর্সের চেয়ারম্যান (প্রতিমন্ত্রী পদমর্যাদা) কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি বলেন, চলমান লকডাউনে কর্মহীন হয়ে পড়া হতদরিদ্র মানুষের জন্য কাজ করে যাচ্ছে সরকার। পাহাড়ি জনপদ খাগড়াছড়িতে সরকারের পাশাপাশি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগও হতদরিদ্র ও কর্মহীন মানুষের পাসে দাঁড়িয়েছে। বর্তমান সরকারের সময়ে কোন মানুষ না খেয়ে থাকবেনা। এসময় তিনি সকলকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাসহ মাস্ক ব্যবহারের আহ্বান জানান।

মাটিরাঙ্গা পৌরসভা ও সাতটি ইউনিয়নে একশজন করে আটশ হতদরিদ্র ও নিম্ন আয়ের কর্মহীন মানুষের মাঝে খাদ্য সহায়তা বিতরণ করা হবে জানিয়ে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সুবাস চাকমা বরেন, প্রতি পরিবারকে ১০ কেজি চাউল, ১ কেজি ডাল, ১ কেজি পেঁয়াজ, ২ কেজি আলু, ১ কেজি লবন ও ১ লিটার সয়াবিন তৈল প্রদান করা হবে।

করোনা মহামারীর উর্ধ্বগতি ঠেকাতে সাধারণ জনগনকে যার যার ঘরে থাকার আহ্বান জানিয়ে মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম. হুমায়ুন মোরশেদ খাঁন বলেন, অতীতের মতো করোনা মহামারীতেও সংসদ সদস্য মহোদয়ের নির্দেশে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা জনগনের পাশে থাকবে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

1 × 4 =

আরও পড়ুন