মানিকছড়িতে সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে আ.লীগের শোক সমাবেশ

fec-image

খাগড়াছড়ির মানিকছড়ি উপজেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের আয়োজনে দেশব্যাপী সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে শোককে শক্তিতে পরিণত করার লক্ষ্যে বিশাল শোক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম উপজাতীয় শরণার্থী বিষয়ক টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান (প্রতিমন্ত্রী) কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা (এমপি) বলেন, ‌‘এদেশে আগস্ট মাস এলেই স্বাধীনতা বিরোধীরা তৎপরতা শুরু করে। শেখ হাসিনার ঐক্যবদ্ধ ও সুশৃঙ্খল আ.লীগের নেতৃত্ব ঠিক থাকলে এদেশে কখনও স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে পারবে না।’

বুধবার (১৭ আগস্ট ) বিকেল সাড়ে ৪টায় উপজেলা অডিটরিয়াম মাঠে আ.লীগ সভাপতি মো. জয়নাল আবেদীনের সভাপতিত্বে এবং উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. মাঈন উদ্দীন ও সাংগঠনিক সম্পাদক মো. রফিকুল ইসলামের যৌথ সঞ্চালনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা মহিলা আ.লীগ সাধারণ সম্পাদিকা শাহিনা আক্তার ।

এছাড়াও বক্তব্য রাখেন, খাগড়াছড়ি জেলা আ.লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা রণ বিক্রম ত্রিপুরা, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মংসুইপ্রু চৌধুরী অপু, পৌরসভার মেয়র ও জেলা আ’লীগ সাধারণ সম্পাদক নির্মলেন্দু চৌধুরী, জেলা পরিষদ সদস্য এম.এ. জব্বার, কল্যাণ মিত্র বড়ুয়া, জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. দিদারুল আলম।

প্রধান অতিথি বলেন, ‘আগস্ট মাস মানেই শোকের মাস। ১৯৭৫ সালে জাতির পিতাকে সপরিবারে হত্যার মধ্য দিয়ে এদেশে হত্যাযজ্ঞে মেতে উঠেছিল স্বাধীনতা বিরোধী চক্র। ২০০৫ সালে একযোগে সারাদেশে সিরিজ বোমা হালমা চালিয়ে আগস্টের ভয়াবহ ও নৃশংসতায় জাতিকে কলঙ্কিত করেও তাঁরা ক্ষান্ত হয়নি। আজও তাঁরা নানা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা তাঁর পিতার অর্জিত লাল-সবুজের দেশকে আজ উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে সক্ষম হয়েছেন।’

সমাবেশে বিশেষ অতিথি ছিলেন, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ম্রাগ্য মারমা, ইউপি চেয়ারম্যান মো. শফিকুর রহমান ফারুক, সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মো. সফিউল আলম চৌধুরীসহ জেলা ও উপজেলা আ’লীগ,যুবলীগ ও ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথি শোক সমাবেশে উপস্থিতির আগে ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে নির্মিত বঙ্গবন্ধু’র ম্যুরাল ও মুক্তিযোদ্ধার নাম ফলক উদ্বোধন করেন এবং উপজেলা আ.লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্যদের নিয়ে পরিচিত সভায় গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

seventeen − 16 =

আরও পড়ুন