মানিকছড়ির কৃষিখাতে উন্নত প্রযুক্তির রিপার যন্ত্র ব্যবহারে জমির পাকা ধান কেটে সাবার

fec-image

দেশে কৃষিখাতে আধুনিকতার ছোয়া লেগেছে অনেক আগেই। তবে পার্বত্য খাগড়াছড়িতে এই প্রথম রিপার যন্ত্রে মুহুর্ত্বে জমির পাকা ধান কেটে সাবার করছে মানিকছড়ির কৃষকরা। ফলে আনন্দের বন্যা বইছে কৃষককূলে।

উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে, সরকার দেশব্যাপি কৃষিখাতে ব্যাপক উন্নয়নে অব্যাহত রেখেছে। এর ধারাবাহিকতায় পার্বত্য খাগড়াছড়ির মানিকছড়িতে এই প্রথম রিপার যন্ত্রে ধান কাটছে কৃষকরা।

সম্প্রতি মানিকছড়িতে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে দুই জন কৃষককে কৃষি মন্ত্রণালয়ের উন্নয়ন সহায়তার আওতায় ৫০ শতাংশ ভতুর্কিতে গড়ে ৯০ হাজার টাকায় রিপার যন্ত্র হস্তান্তর করা হয়। উপজেলা চেয়ারম্যান মো. জয়নাল আবেদীন, ইউএনও তামান্না মাহমুদ উপস্থিত থেকে উক্ত আধুনিক যন্ত্রটি কৃষকের হাতে তুলে দেন।

রোববার (১০ মে) সকাল ১১টায় তিনটহরী হাজী ইকবাল হোসেন এর বিলে কৃষক ক্যাউচাই মারমা জমিনে রিপার গ্রহীতা থুইলাপ্রু দেওয়ান কৃষকের পাকা কাটা উদ্বোধন করা হয়।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. নাজমুল হোসেন মজুমদার ও উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মো. হেলাল উদ্দীন উপস্থিত থেকে উক্ত রিপার যন্ত্রে ধান কাটা উদ্বোধন করেন।

এ সময় কৃষক ক্যাউচাই মারমা জানান, ১ কানি বা ৪০ শতক জমির পাকা ধান কাটতে কমপক্ষে ৪জন লেবার প্রয়োজন হয়। আর এতে ব্যয় ১হাজার টাকা। অথচ রিপার যন্ত্রে মাত্র ১ ঘণ্টায় ১ লিটার ডিজেল খরচে ওই জমির ধান কেটে সাবার করা যায়। এতে রিপার মালিককে দিতে হবে ৬‘শ টাকা। দৈনিক কমপক্ষে ২/৩ একর জমির ধান অনায়াসে কাটা যাবে।

এ সময় কৃষি কর্মকর্তা মো. নাজমুল হোসেন মজুমদার বলেন, খাগড়াছড়ি জেলায় এই প্রথম মানিকছড়িতে দুই জন কৃষকের হাতে রিপার যন্ত্র হস্তান্তর করা হয়েছে।

ফলে মানিকছড়ি কৃষিখাত এখন অধিক উচ্চতায় পৌঁছে গেল। কৃষকদের উন্নয়নে কৃষিখাতে সরকারের ধারাবাহিক ভর্তুকির অংশ হিসেবে উপজেলায় কৃষি সেক্টরে উন্নয়নের ছোঁয়া লেগেছে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × five =

আরও পড়ুন