মুজিববর্ষে প্রথম পর্যায়ে রাঙামাটিতে ভূমিসহ গৃহ পাবে ২৬৮ পরিবার

fec-image

মুজিববর্ষে “বাংলাদেশের একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না” প্রধানমন্ত্রীর এ ঘোষণা বাস্তবায়নে পরিবার প্রতি ২শতাংশ খাসজমি বন্দোবস্তি প্রদানপূর্বক ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে একক গৃহ নির্মাণের মাধ্যমে পুনর্বাসনের লক্ষ্যে সারাদেশের ন্যায় পাহাড়ি জেলা রাঙামাটির ২৬৮টি পরিবার জমিসহ গৃহ পেতে যাচ্ছে।

আগামী ২৩ জানুয়ারি সারাদেশের ন্যায় রাঙামাটির ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবার এসব গৃহ পাবেন বৃহস্পতিবার (২১ জানুয়ারি) বিকেলে রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ তথ্য জানান, জেলা প্রশাসক (ডিসি) একেএম মামুনুর রশীদ।

ডিসি একেএম মামুনুর রশীদ বলেন, প্রথম পর্যায়ে সারাদেশে ৬৯হাজার ৯০৪জন ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবার উপকারভোগীর তালিকায় ঠাঁই পেয়েছেন। ২৩জানুয়ারি সকাল সাড়ে ১০টায় সারাদেশে একযোগে প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সিং এর মাধ্যমে জমি ও ঘর প্রদান কার্যক্রম শুভ উদ্বোধন করবেন।

তিনি আরও বলেন, প্রতিটি ঘর তৈরি করতে ১লাখ ৭১হাজার টাকা খরচ পড়েছে। ঘরগুলোর বেশিরভাগ কাজ চলমান রয়েছে। ডিসি জানান, জেলার রাঙামাটি সদর উপজেলায় ৬০টি, কাপ্তাই উপজেলায় ৩৪টি, রাজস্থলী উপজেলায় ৬২টি, বরকল উপজেলায় ১৯টি, বাঘাইছড়ি উপজেলায় ৩৫টি ,
লংগদু উপজেলায় ৩৪টি এবং নানিয়ারচর উপজেলায় ২৮টি গৃহ নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়েছে।

২৩ জানুয়ারি সকাল ১০টায় রাঙামাটি সদর উপজেলায় স্থানীয় সংসদ সদস্য, উপজেলা চেয়ারম্যান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি এবং গণমাধ্যম কর্মীদের উপস্থিত থাকতে অনুরোধ জানান তিনি।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: প্রধানমন্ত্রী, মুজিববর্ষ, রাঙামাটি
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

seventeen − 15 =

আরও পড়ুন