রাখাইনে আবারও গ্রাম পুড়িয়ে দিয়েছে মিয়ানমার সেনাবাহিনী

fec-image

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের কিয়াকতাউ টাউনশিপের কাছে একটি গ্রাম পুড়িয়ে দিয়েছে সেনাবাহিনী। বৃহস্পতিবার বিকেলের এই ঘটনায় দুইজন গ্রামবাসীকেও তারা হত্যা করা হয় বলে অধিবাসীরা জানিয়েছে।

ক্ষতিগ্রস্তদের স্বজনরা জানায়, রাত আটটার দিকে ইয়াঙ্গুন-সিত্তুই সেড়কের পাশে ফায়াপাউং গ্রামের উপর গোলাবর্ষণ শুরু করে সেনাবাহিনী। এসময় তারা দুই গ্রামবাসীকে হত্যা করে। পরে বাড়িঘরে আগুন লাগিয়ে দেয়।

নিহত ২৭ বছর বয়সি কো মং নিয়ান্ত উইন এর পিতা উ নিও মং লা বলেন, বিকেল ৫টার দিকে বাইকে চড়ে আমার ছেলে কাজ থেকে ফিরছিলো। সে কিয়াকতাউতে কাজ করে। তখন সে সেনাদের মুখোমুখি হয়। তারা তাকে পথ দেখিয়ে নিয়ে যেতে বলে। এসময় গ্রামের কাছে বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যায় এবং সেনারা হামলা চালায়।

এরপর কিয়াকতাউ থেকে ট্রাকে করে সেনারা এসে গ্রামটি ঘিরে ফেলে। গ্রামবাসীদের ঘর থেকে বেরিয়ে আসতে বলা হয় যেন আগুন লাগানোর আগে সেনারা বাড়িঘরে লুটপাট চালাতে পারে, বলে মং লা। ওই গ্রামে প্রায় ৪০০ বাড়ি ছিলো, যার অর্ধেক পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

অনেক গ্রামবাসী পালিয়ে গেছে। গ্রামবাসীদের চেষ্টায় কয়েকটি বাড়ি পুড়ে যাওয়া থেকে রক্ষা পায়।

সেনারা লুটপাটের জিনিসপত্র ট্রাকে করে নিয়ে যায় বলে মং লা জানিয়েছেন।

সেনাদের এই হামলার কথা অস্বীকার করে মুখপাত্র মেজর জেনারেল জাও মিন তুন বলেন, গ্রামের কাছে রাস্তায় বোমা পেতে সেনাদের উপর হামলা চালানো হয়। ওই ঘটনায় দুটি লাশ ও বন্দুক উদ্ধার করা হয়।

নিরাপত্তা বাহিনীর উপর হামলার জন্য মুখপাত্র আরাকান আর্মিকে দায়ি করেন।

সূত্র: South Asian Monitor

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 − four =

আরও পড়ুন