রাজস্থলীতে অপহৃত বিএনপি’র সহ-সভাপতি দ্বীপময় তালুকদারের লাশ উদ্ধার

fec-image

অপহরণের এক দিন পর রাঙামাটির রাজস্থলী উপজেলার অপহৃত ৩৩৩নং ঘিলাছড়ি মৌজার হেডম্যান (মৌজা প্রধান), বিএনপির উপজেলা শাখার সহ-সভাপতি সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান দ্বীপময় তালুকদারের (৪৫) লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বুধবার (২৩ অক্টোবর) সকাল ৮টায় তাইতং পাড়ার নারাইছড়ি-হলোদিয়া এলাকা থেকে দ্বীপময় তালুকদারের লাশ উদ্ধার করা হয়।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্র জানায়, সেনাবাহিনীর ২৬ ইসিবির মাধ্যমে রাজস্থলী উপজেলার গাইন্দ্যা ইউনিয়নের তাইতং পাড়ার এলাকায় তিনজনকে সাথে নিয়ে গেল মঙ্গলবার (২২ অক্টোবর) সড়কের কাজ তদারকি করতে যান। তদারকি শেষে দ্বীপময় তালুকদার বাড়ী ফিরছিলেন। এসময় জিরোমাইল এলাকায় পৌঁছলে একদল সন্ত্রাসী অস্ত্রের মুখে অজ্ঞাত স্থানে অপহরণ করে নিয়ে যায়।

এদিকে অপহরণের পরদিন বুধবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে তাইতং পাড়ার নারাইছড়ি-হলোদিয়া এলাকায় দ্বীডপময় তালুকদারের লাশ স্থানীয় লোকজন দেখতে পায়। পরে পুলিশকে খবর দিলে তার লাশ উদ্ধার করে। বর্তমানে এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে।

তবে এ হত্যাকান্ডের ঘটনায় কারা জড়িত তা এখনো জানা যায়নি।

রাজস্থলী থানার ওসি মফজল আহমেদ খান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, নিহত ব্যক্তি এলাকার প্রভাবশালী হওয়ায় কিছুটা উত্তেজনা রয়েছে। নিহতের মাথায় গুলি ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যার করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে পুলিশ। ঘটনার জন্য এলাকাবাসী আঞ্চলিক দলগুলোকে দায়ী করেছে। লাশ উদ্ধারের পর পরই এলাকাবাসী বিক্ষোভ করেছে।

রাজস্থলী থানার অফিসার ইনচার্জ মফজল আহাম্মেদ জানিয়েছেন সকাল সাতটার সময় একটি লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা নিরাপত্তা বাহিনীকে খবর দেয়। এ সময় আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় হেডম্যান দিপময় তংচঙ্গ্যার মরদেহ পড়ে থাকতে দেখি।

নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য রাঙামাটি পাঠানোর কথা রয়েছে।

নিহত দীপময় তংচঙ্গ্যা ৩৩৩নং ঘিলাছড়ি মৌজার হেডম্যান, সাবেক ইউপি চেয়্যারম্যান ও রাজস্থলী বিএনপির সহ সভাপতি।

এ ঘটনার সঙ্গে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা জড়িত রয়েছে বলে দাবি করছে পরিবার। পারিবারিক একটি সূত্রের দাবি, দ্বীপময় তালুকদারকে অপহরণের পর জেএসএস এর সঙ্গে পরিবারের লোকজন যোগাযোগ করলে অপহরণের বিষয়টি অস্বীকার করে তাদের ধৈর্য্যধারণের পরামর্শ দেয়।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: বিএনপি, লাশ উদ্ধার
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

eighteen − nine =

আরও পড়ুন