লামার গজালিয়া-আজিজনগর সড়কের পাহাড় কেটে দোকান প্লট নির্মাণ

fec-image

বান্দরবান জেলার লামা উপজেলার গজালিয়া-আজিজনগর সড়কের সোলেমান বাজার অংশে পাহাড় কেটে সড়কের জায়গায় দোকান ঘর নির্মাণ করে অবৈধভাবে জবর দখলের অভিযোগ উঠেছে।

চলমান করোনা পরিস্থিতির সুযোগ নিয়ে সড়ক ও জনপদ বিভাগের মালিকাধীন পাহাড় কেটে ৪ টি দোকান ঘর নির্মাণ করা হয়েছে এবং আরো দোকান ঘর নির্মাণ করার জন্য পাহাড় কাটা চলমান রয়েছে বলে অভিযোগে জানা গেয়েছে।

জানা গেছে, সড়ক ও জনপদ বিভাগ বান্দরবান জেলার নির্বাহী প্রকৌশলীর নামে গজালিয়া-আজিজনগর সড়কের জায়গা অধিগ্রহণ করে এই সড়ক নির্মান করা হয়।

এই সড়কের দায়িত্ব প্রাপ্ত উপসহকারী প্রকৌশলী মাসুম বিল্লাহ ও স্থানিয় শ্রমিক মহসিন জানান অবদুস ছবুর বাবুল (৫২) নামক ব্যক্তি এই সড়কের পাহাড় কেটে দোকান ঘর নির্মাণ করেছে এবং আরো দোকান ঘর নির্মাণ করার জন্য পাহাড় কাটা অব্যহত রেখেছে।

সোলেমান বাজারের অদিবাসি মুক্তিযোদ্ধ আব্দুল রউফ জানান সোলেমান বাজার অংশে এই সড়কের পাহাড় কাটার জায়গাটি সড়ক ও জনপদ বিভাগের। পাহাড় কেটে দোকান ঘর নির্মাণ করার ফলে সড়কটি সংকোচিত হয়ে জনগণের চলাচলের অসুবিধা সৃষ্টি হচ্ছে বলে স্থানীয় অদিবাসিরা জানিয়েছেন।

অভিয্ক্তু আবদুস ছবুর বাবুল পাহাড় কাটার অভিযোগ স্বীকার করে জানান রিং স্লাবের দোকান তৈরির জন্য পাহাড় কেটে প্লট নির্মাণ করা হচ্ছে। তিনি আরো জানান স্থানীয় নেতারা বিষয়টি জানেন।

এই বিষয়ে লামা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. রেজা রশিদ জানান যেহেতু এই সড়কটি সড়ক ও জনপদ বিভাগের তাই পাহাড় কাটার বিষয়ে তাদেরকে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উদ্যোগ নিতে হবে।

সড়ক ও জনপদ বিভাগের বান্দরবান জেলা নির্বাহী প্রকৌশলী (অতিরিক্ত দায়িত্ব) মোঃ শাহে আরেফিন জানান সড়কের জায়গা জবর দখলের জন্য পাহাড় কাটার বিষয়ে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। সরকারি এই জায়গা কোনভাবেই জবর দখল করতে দেওয়া হবে না।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

thirteen + 11 =

আরও পড়ুন