লামায় ধর্ষণ ও লুটের অভিযোগে স্বামীর বড় ভাই’র বিরুদ্ধে মামলা!

fec-image

লামা উপজেলার রুপসীপাড়া ইউনিয়নের বৈদ্যভিটায় এক ওমান প্রবাসীর অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী তার স্বামীর বড় ভাই কর্তৃক ধর্ষণের শিকার হওয়ার অভিযোগ এনে থানায় মামলা করেছে। মামলার এজহারে এক জনের নাম উল্লেখ ও আরেক জনকে অজ্ঞাতনামা আসামি করা হয়েছে।

আসামীগণ কর্তৃক দেড়ভরি স্বর্ণ ও নগদ ৫৫ হাজার টাকা লুট করার অভিযোগ আনা হয়েছে। বুধবার দিবাগত রাত ২.৩০টা থেকে রাত ৪টা পর্যন্ত এই ঘটনা ঘটেছে বলে ভিকটিম দাবি করেছে।

ধর্ষণের শিকার নারী তার দেবর আবুল বশরকে সাথে নিয়ে লামা থানায় উপস্থিত হয়ে আজ (বৃহস্পতিবার) বিকালে এই মামলা দায়ের করেছে। এর পূর্বে ভিকটিম লামা হাসপাতালে গেলে তাকে বান্দরবান সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

ধর্ষণের শিকার নারী জানান, রাতে প্রাকৃতিক ডাকে সাড়া দিয়ে ছোট ছেলেকে নিয়ে ঘরের পেছনের দরজা খুললে তার স্বামীর বড় ভাই জয়নাল আবদীন হাজারী মুখ চেপে ধরে হাত পা বেধে তাকে ধর্ষণ করে। এসময় তার সাথে আরো একজন ছিলো বলে সে জানায়। সকালে লামা থানায় খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ঐ নারীর হাত পায়ের বাধন খুলে তাকে উদ্ধার করেছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আবু তাহের জানান, মৃত তরার আলীর দুই স্ত্রীর সন্তানদের মধ্যে জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। জমির বিরোধের ঘটনা নিয়ে লামা থানায় অভিযোগ তদন্তাধীন আছে। ধর্ষণের এই ঘটনার পারিপার্শ্বিক অবস্থা বিবেচনা করলে ঘটনাটি সাজানো বলে মনে হচ্ছে। তারপরও তদন্তে আসল ঘটনা বের হয়ে আসবে।

রুপসীপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান ছাচিং প্রু জানান জায়গা জমিনের বিরোধ থেকে এই ধর্ষণের ঘটনা সাজানো হয়েছে।

লামা থানা অফিসার ইনচার্জ শহীদুল ইসলাম জানান, তদন্ত পূর্বক দোষীদের আইনের আওতায় আনা হবে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 + 9 =

আরও পড়ুন