সোনাইছড়িতে ইয়াবাসহ আটক যুবলীগ সভাপতি পিন্টুকে সাময়িক বহিষ্কার

fec-image

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার সোনাইছড়ি থেকে ইয়াবাসহ আটক ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি উছাহ্লা মারমা পিন্টুকে দলীয় পদপদবী থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে।

শনিবার (২১ আগস্ট) সকালে দলীয় প্যাডে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি জসিম উদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক আলী হোসেনের স্বাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে তাকে বহিষ্কার করা হয়।

বহিষ্কারাদেশে উল্লেখ করা হয়, যুবলীগ উপজেলা ও সকল ইউনিয়নের শাখা সুশৃংখল। এবং সুসংগঠিত। শুক্রবার রাতে সোনাইছড়ি ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি উছাহ্লা মারমা পিন্টু আইন শৃংখলা বাহিনীর হাতে ইয়াবাসহ আটক হয়। এতে যুবলীগের অর্জিত সুনাম ক্ষুন্ন হয় এবং দলীয় শৃংখলা ভঙ্গ হয়। তারই প্রেক্ষিতে জেলা যুবলীগের নির্দেশে উছাহ্লা মারমা পিন্টুকে ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতির পদ থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়। একই পত্রে ইউনিয়ন যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি মংচহ্লা মারমা বিজয়কে পরবর্তী কাউন্সিল না হওয়া পর্যন্ত ভারপ্রাপ্ত সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

এই প্রসঙ্গে উপজেলা যুবলীগের এক নেতা জানান, যুবলীগে কোন অপরাধীর স্থান নেই। সংগঠনের ভিতরে থেকে কেউ কোন অনৈতিক কাজ করলে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। তাৎক্ষণিক সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এদিকে ইয়াবাসহ আটক উছাহ্লা মারমা পিন্টুসহ তিনজনের নাম উল্লেখ করে মোট পাচঁ ইয়াবা কারবারীর বিরুদ্ধে মাদক মামলা হয়েছে নাইক্ষ্যংছড়ি থানায়। নির্ভরযোগ্য একটি সূত্র জানিয়েছে, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত সোনাইছড়ির সাইফুল মেম্বার ও লাথোয়াইচিং সিন্ডিকেট গত কয়েকদিন আগে মিয়ানমারের এক ব্যবসায়ীর মাধ্যমে ইয়াবার চালানটি এনেছিল। পরবর্তী রামুর একটি সিন্ডিকেটের মাধ্যমে এই ইয়াবার চালান পাচারের আগেই নাইক্ষ্যংছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মুহাম্মদ আলমগীর হোসেনের নেতৃত্বে পুলিশ মাদকের এই চালানটি আটক করেছে।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার সন্ধ্যায় জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার সোনাইছড়ি ইউনিয়নের মারোগ্যপাড়া এলাকা থেকে উছাহ্লা মারমাকে ১ লাখ ৭১ হাজার ইয়াবাসহ আটক করে পুলিশ। যার আনুমানিক মূল্য ৫ কোটি ১৩ লক্ষ টাকা।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

thirteen − 9 =

আরও পড়ুন