অবশেষে হচ্ছে ‘মনিকা চাকমা ব্রিজ’ ও ‘আনাই-আনুচিং ব্রিজ’

fec-image

গত ২২ সেপ্টেম্বর ‘খাগড়াছড়ির ২ কৃতি ফুটবলার আনাই-আনুচিংয়ের বাড়ি যাওয়ার পথ যেন মরণফাঁদ’ শিরোনামে পার্বত্যনিউজে একটি বিশেষ প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। পরবর্তিতে ভিন্ন শিরোনামে বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রতিবেদনটি প্রকাশিত হয়। ফলশ্রুতিতে পার্বত্য জেলা পরিষদের উদ্যোগে সাফ জয়ী খাগড়াছড়ির তিন ফুটবলার আনাই, আনুচিং ও মনিকা’র নামে সংযোগ সড়কসহ ব্রিজ নির্মাণ করা হচ্ছে। ব্রিজের নাম হবে ‘আনাই-আনুচিং ব্রিজ’ ও ‘মনিকা চাকমা ব্রিজ’।

আনাই মগিনী ও আনুচিং মগিনীর বাড়ির সামনের সংযোগ সড়কসহ ব্রিজ নির্মাণে প্রায় দুই কোটি টাকা ব্যয় হবে। এটি এখন দরপত্র আহ্বানের প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। একইভাবে মনিকা চাকমার যাতায়াতের সুবিধার্থেও সড়কসহ ব্রিজ নির্মাণ করে দেবে পার্বত্য জেলা পরিষদ। খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মংসুই প্রু চৌধুরী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের নির্বাহী প্রকৌশলী তৃপ্তি শঙ্কর চাকমা জানান, ২০২১-২২ অর্থ বছরে প্রায় ২ কোটি ব্যয়ে প্রায় ৩০ ফুট দৈর্ঘ্য ও ১২ ফুট প্রস্থের ব্রিজ নির্মাণ করা হবে। সেইসঙ্গে মূল সড়ক থেকে ব্রিজ পর্যন্ত সংযোগ সড়ক নির্মাণ করা হবে। কাজটির পরিকল্পনা ও প্রাক বাজেট এবং নকশা শেষ করা হয়েছে। এখন দরপত্র আহ্বানের প্রক্রিয়াধীন আছে। এছাড়া আগামী অর্থ বছরে মনিকা চাকমার লক্ষ্মীছড়ি উপজেলার সুমন্তপাড়ার বাড়িতে যাওয়ার সুবিধার্থে সংযোগ সড়কসহ ব্রিজ নির্মাণ করে দেবে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মংসুইপ্রু চৌধুরী অপু সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে বলেন, আনাই মগিনী, আনুচিং মগিনী ও মনিকা চাকমা খাগড়াছড়ির গর্ব। এরা বিশ্বাবাসীর কাছে আমাদের মুখ উজ্জ্বল করেছে। আমাদের পক্ষে যতটুকু সম্ভব করে যাচ্ছি। তাই ব্রিজগুলো খেলোয়ারদের নামেই নামকরণ করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন