কক্সবাজারে বনকর্মীদের চাঁদাবাজির সংবাদ প্রকাশ করায় সংবাদকর্মীকে অপহরণ চেষ্টা

fec-image

কক্সবাজার টেকনাফের হোয়াইক্যং বনবিটের দুইজন বনকর্মীর বিরুদ্ধে চাঁদা দাবির সংবাদ প্রকাশ করায় আবছার কবির আকাশ নামক সংবাদকর্মীকে অপহরণ চেষ্টার অভিযোগ ওঠেছে।

সোমবার (১৫ আগস্ট) রাত ৮টার দিকে মুঠোফোনে তিনি নিজেই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আবছার কবির আকাশ দেশ টিভির কক্সবাজার প্রতিনিধি, কক্সমর্নিং অনলাইন নিউজ পোর্টালের সম্পাদক ও প্রকাশক। এছাড়া দৈনিক ভোরের ডাক পত্রিকার টেকনাফ প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করেন।

তিনি বলেন, ‘বনকর্মীদের চাঁদাবাজির সংবাদ প্রকাশের জেরধরে হোয়াইক্যংয়ের দুই বন কর্মকর্তার নেতৃত্বে আমাকে অপহরণের চেষ্টা করা হয়েছে। এলাকাবাসীর প্রতিরোধের মুখে আমাকে অপহরণ করতে পারেনি।’

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগের সূত্রে জানা গেছে, হোয়াইক্যং ইউপির রইক্যং এলাকার বাসিন্দা কাশেমের কাছ থেকে অভিযুক্ত দুই বনকর্মী চাঁদা দাবি করেছে। চাঁদা না দেয়ায় ওই ভূমিহীন পরিবারের বাগান কেটে ফেলে। যাতে তাঁর অনেক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

অসহায় ভূমিহীন কাশেম সাংবাদিক আকাশকে জানালে তিনি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের বক্তব্যসহ সংবাদ প্রকাশ করেন। এই সংবাদে ক্ষুব্ধ হন অভিযুক্ত বনকর্মীরা।

সংবাদ প্রকাশের পরপরই আকাশকে জিম্মি করে জোরপূর্বক নিউজ ডিলেট করিয়েছে । এর থেকেই ওই বনকর্মীরা সাংবাদিক আকাশকে ফলো করে আসছিল বলে জানান আকাশ।

আবছার কবির আকাশ অভিযোগ করেন, রাত ৮টার দিকে স্টেশন থেকে বাড়ি যাওয়ার পথে হোয়াইক্যং ব্রিজ পার হয়ে নির্জনে পৌঁছালে তাকে অপহরণের চেষ্টা করে বনকর্মীরা। সাংবাদিক জিয়াবুল হক জিয়া সাথে থাকার সুবাদে অপহরণ থেকে বেঁচে যান।

ঘটনা প্রসঙ্গে কক্সবাজার দক্ষিণ বন বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা মো. সারওয়ার আলমের কাছে জানতে চাইলে বলেন, ‘এ বিষয়ে আমি অবগত নই। বিস্তারিত খোঁজখবর নিচ্ছি। সাংবাদিকদের সাথে আমাদের কোন শত্রুতা নাই। কেন অপহরণের চেষ্টা করবে? বিষয়টি দেখছি।’

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

16 + nineteen =

আরও পড়ুন