অর্পিতা ঝড়ে শ্রীলঙ্কাকে হারাল বাংলাদেশ

fec-image

জুনিয়র এএইচএফ কাপ টুর্নামেন্টে বাংলাদেশ নারী হকি দলের জয়যাত্রা অব্যাহত রয়েছে। সিঙ্গাপুরে চলমান টুর্নামেন্টে আজ (মঙ্গলবার) বাংলাদেশ ৭-২ গোলে হারিয়েছে শ্রীলঙ্কাকে। এই জয়ের ফলে বাংলাদেশ তিন ম্যাচে নয় পয়েন্ট নিয়ে সাত দলের মধ্যে সবার শীর্ষে ওঠে গেল। শক্তিশালী চাইনিজ তাইপে এক ম্যাচ কম খেলে ছয় পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয়।

অনূর্ধ্ব-২১ দলের এই টুর্নামেন্টে নারী বিভাগে সাতটি দল অংশগ্রহণ করছে। শীর্ষ চার দল জুনিয়র এশিয়া কাপে খেলার সুযোগ পাবে। টানা তিন জয়ে বাংলাদেশ এশিয়া কাপ নিশ্চিত করার পথে। সিঙ্গাপুর থেকে এমনটাই জানালেন নারী দলের ম্যানেজার তারিক উজ জামান, ‘এই টুর্নামেন্টের শীর্ষ চার দল পরের ধাপে খেলার সুযোগ পাবে। টানা তিন জয় আমাদের চতুর্থ স্থান অনেকটাই নিশ্চিত।’

ইন্দোনেশিয়া, সিঙ্গাপুরের মতো দুর্বল প্রতিপক্ষের সঙ্গে পরের ম্যাচগুলোতে বাংলাদেশের আরও পয়েন্ট পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ২০১৯ সালে বাংলাদেশের নারী দল প্রথমবারের মতো এই টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণ করেছিল। ওই সময় অনভিজ্ঞ সেই দল মাত্র একটি জয় পায়। এবার অভিজ্ঞতা ও প্রস্ততির ফলে বেশ ভালো খেলছে এখন পর্যন্ত।

ম্যাচটিতে রিয়া আফরিনের গোলে বাংলাদেশ ২ মিনিটেই লিড নেয়। দুই মিনিট পর শ্রীলঙ্কার রাজাপাকসে দিলানী টানা দুই গোল করলে পিছিয়ে পড়ে বাংলাদেশ। থাইল্যান্ড ও হংকংয়ের মতো আজও বাংলাদেশ ম্যাচের একপর্যায়ে পিছিয়ে ছিল। প্রথম কোয়ার্টারে শ্রীলঙ্কা ২-১ স্কোরলাইনে এগিয়ে থেকে শেষ করে।

দ্বিতীয় কোয়ার্টার পুরোটাই বাংলাদেশময়। নাদিরা ইমা ১৯ মিনিটে বাংলাদেশের হয়ে সমতা আনেন। এরপর ২৪-২৮ মিনিটের মধ্যে হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন অর্পিতা পাল। থাইল্যান্ডের বিপক্ষেও তিনি জোড়া গোল করে ম্যাচ সেরা হয়েছিলেন। অর্পিতা ঝড়ের পরপরই সোনিয়া খাতুন আরেকটি গোল করেন। দ্বিতীয় কোয়ার্টারে বাংলাদেশ ৫ গোল আদায় করে ৬-২ স্কোরলাইন করে।

তৃতীয় কোয়ার্টারের দ্বিতীয় মিনিটে অর্পিতা আরেকটি গোল করেন। ম্যাচের বাকি সময়ে আর কোনো গোল হয়নি। ফলে বাংলাদেশ ৭-২ গোলের বড় জয় পায়। আজ বাংলাদেশ পুরুষ দলের ম্যাচ ছিল না। আগামীকাল নারী ও পুরুষ উভয় দলের ম্যাচ রয়েছে। যেখানে পুরুষ দল থাইল্যান্ড ও নারী দল চাইনিজ তাইপের মুখোমুখি হবে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন