উপজাতীয় সন্ত্রাসী কর্তৃক জীবননাশের হুমকির প্রতিবাদে রাঙামাটিতে মানববন্ধন

fec-image

পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি সন্তু গ্রুপ কর্তৃক (পিসিজেএসএস) দাবিকৃত চাঁদা না দেওয়া, স্থানীয়দের পানি সরবরাহের ফাইপ কেটে দেওয়া এবং জীবননাশের হুমকি দেওয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে স্থানীয় জনতা।

বুধবার (১২ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের কার্যালয়ের সামনে লংগদু উপজেলার বাসিন্দারা এ মানববন্ধন করেছে।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, স্বাধীন দেশের নাগরিক হিসেবে আমাদের বেঁচে থাকার অধিকার রয়েছে। পার্বত্য চট্টগ্রাম দেশের কোন আলাদা অঞ্চল নয়। তারপরও এখানে উপজাতীয় কয়েকটি সশস্ত্র সন্ত্রাসী গ্রুপ সাধারণ জনতাকে জিম্মি করে জোরপূর্বক চাঁদা আদায় করে আসছে। তাদের বিরুদ্ধে কোন প্রতিবাদ করলে তাকে মৃত্যু দোয়ারে পাঠিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

বক্তারা আরও বলেন, আমরা লংগদুবাসী থেকে সম্প্রতি সন্তু গ্রুপের জেএসএস সশস্ত্র বাহিনী ঘর প্রতি চাঁদা দাবি করে আসছে। আমরা দিতে অস্বীকার করায় আমাদের ব্যবহৃত পানির পাইপ কেটে দিয়েছে তারা। বর্তমানে আমরা বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ করতে পারছি না।

এছাড়া ১১ফেব্রুয়ারি নানিয়ারচর উপজেলায় নিরীহ বাঙ্গালীদের উপর প্রসীত গ্রুপের ইউপিডিএফ সশস্ত্র সদস্যরা হামলা চালিয়ে নিরীহ বাঙ্গালীদের ঘর ভাংচুর এবং পিটিয়ে বেশ কয়েকজনকে জখম করেছে। এ ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানান তারা।

বক্তারা দাবি জানিয়ে বলেন, অভিলম্বে পানি পাইপ পুন:স্থাপন, নানিয়ারচরে নিরীহ বাঙ্গালীদের উপর হামলাকারী সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করে আইন আওতায় এনে শাস্তি প্রদানের জোর দাবি জানান প্রশাসনের কাছে। তা করলে আরও তীব্র আন্দোলনের ডাক দেওয়া হবে হুঁশিয়ারী উচ্চারণ করেন বক্তারা।

এসময় বক্তৃতা করেন, আবু বক্কর মোল্লা, মো. সোলায়মান, মো.হাবিব আজম হাবিব, মো. নূর হোসেন এবং মো. নুরুল আবছারসহ উপজেলার ভুক্তভোগী অন্যান্য বাসিন্দারা।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 − nine =

আরও পড়ুন