মহেশখালী এক সময় সন্ত্রাস, নৈরাজ্য ও আতঙ্কের নাম ছিল: আশেক উল্লাহ রফিক

fec-image

মহেশখালী এক সময় সন্ত্রাস, নৈরাজ্য ও আতঙ্কের নাম ছিল। বর্তমান সরকারের সময়ে এই দুর্নাম গোছাতে সক্ষম হয়েছে পুলিশ, র‌্যাব ও সাংবাদিকদের লেখুনির মাধ্যমে। জলদস্যু ও চিহ্নিত অপরাধীরা পর্যায়ক্রমে সরকারের কাছে আত্মসমর্পনের মাধ্যমে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে এসেছে।

৪ ফেব্রুয়ারি (বৃহস্পতিবার) বিকাল ৩টায় মহেশখালী পৌরসভার ঘোনা পাড়াস্থ অহনা কনভেনশন হলে মহেশখালী থানা কর্তৃক আয়োজিত বিট পুলিশিং সভায় প্রধান অতিথির বক্ত্যবে সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, বর্তমান সরকার বাংলাদেশের যত উন্নয়ন তার ৫০ ভাগ কক্সবাজারের মহেশখালীকে ঘিরে। অতীদ্রুত সময়ের মধ্যে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নের অংশিদারিত্ব হতে মহেশখালীর সাথে কক্সবাজারের সংযোগ সেতু বা ট্যানেল স্থাপন করবে সরকার।

আলোচনা সভায় প্রধান আলোচক কক্সবাজার জেলা পুলিশ সুপার মো. হাসানুজ্জামান পিপিএম বলেন , মহেশখালীর মানুষ আমাদের উপর আস্থা রাখুন আপনি ঘরে বসে পুলিশের সেবা উপভোগ করতে পারবেন। দূর থেকে নয় তৃণমূল মানুষের নিকট থেকে অভাব, অভিযোগ শোনা এবং সমাজ থেকে মাদক, সন্ত্রাস নির্মুলে পুলিশ কাজ করবে। এই জন্য সমাজের প্রতিটি স্তর থেকে সহযোগিতার আহ্বান জানান।

সহকারী পুলিশ সুপার জাহেদুল ইসলাম বলেন, আপনারা আমাদের ২৫ পয়সার ভালোবাসা দেন আমরা বিনিময়ে আপনাদের এক টাকার ভালোবাসা উপহার দিবো। মহেশখালীকে এমন একটি উপজেলা গড়ে তোলবো সারা জীবন এলাকার মানুষ আমাদের স্মরণ রাখবে।

মহেশখালী থানার ওসি আব্দুল হাই এর সভাপতিত্বে , ওসি তদন্ত আশিক ইকবালের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন মহেশখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মাহফুজুর রহমান, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার জাহেদুল ইসলাম, মহেশখালী পৌর মেয়র আলহাজ্ব মকছুদ মিয়া, মহেশখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব আনোয়ার পাশা চৌধুরী, মহেশখালী পৌরসভার প্রথম প্রশাসক ও মহেশখালী কমিউনিটি পুলিশের সভাপতি এম. আজিজুর রহমান প্রমুখ।

এছাড়াও সাংবাদিক, বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক, ধর্মীয়, পেশাজীবী জনপ্রতিনিধিসহ বিভিন্ন ব্যক্তিবর্গগণ উপস্থিত ছিলেন। আলোচনাসভা শেষে মহেশখালী পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের বিট পুলিশ কার্যালয় উদ্বোধন করেন এসপি ও সাংসদ সহ আগত অতিথিরা।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

12 − six =

আরও পড়ুন