উইন্ডোজ ১১: মাইক্রোসফটের নতুন অপারেটিং সিস্টেম চালু

fec-image

পরীক্ষামূলক পর্ব শেষে উইন্ডোজ ১১-এর পূর্ণ সংস্করণ ছাড়ল মাইক্রোসফট। পর্যায়ক্রমে বিশ্বব্যাপী কম্পিউটারে পৌঁছে দেওয়া হবে নতুন অপারেটিং সিস্টেমটি। তবে প্রতিটি নতুন অপারেটিং সিস্টেমের বেলায় যেমনটা হয়, পর্যায়ক্রমের ক্রম যেন শেষই হতে চায় না।

দ্য ভার্জের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আপনি যদি উইন্ডোজ ১১-এর জন্য অপেক্ষা করতে না চান, তাহলে তার প্রয়োজনও নেই। খানিকটা চেষ্টায় আপনি নতুন উইন্ডোজ নামিয়ে ইনস্টল করতে পারবেন কম্পিউটারে।

এখানে মনে রাখা জরুরি, মাইক্রোসফটের ন্যূনতম মানদণ্ড অনুযায়ী আপনার কম্পিউটার ‘উপযুক্ত’ না হলে সরাসরি উইন্ডোজ ১১ ইনস্টল করতে পারবেন না। তার মানে এই নয় যে একদমই পারবেন না।

মাইক্রোসফট বলেছে, আপনার কম্পিউটার যদি পুরোনো হয়, তবু উইন্ডোজ ১১ ব্যবহার করতে পারবেন। সে ক্ষেত্রে আপনাকে আলাদা করে উইন্ডোজ ১১-এর আইএসও ফাইল নামিয়ে ইনস্টল করতে হবে।

মাইক্রোসফটের সতর্কবার্তা অনুযায়ী, এভাবে নতুন অপারেটিং সিস্টেম ইনস্টল করলে স্বয়ংক্রিয় হালনাগাদের অপশন কাজ না-ও করতে পারে। তবে একই প্রক্রিয়ায় প্রতিটি নতুন সংস্করণ নামিয়ে ইনস্টল করার সুযোগ তো আছেই।

শুরুতে অবশ্য সোজা আঙুলেই ঘি তোলার চেষ্টা করা যেতে পারে। দেখে নিতে পারেন আপনার উইন্ডোজ ১০ চালিত কম্পিউটারটি উইন্ডোজ ১১–তে হালনাগাদ করার সুযোগ দেওয়া হয়েছে কি না। এ জন্য ‘সেটিংস’ থেকে ‘উইন্ডোজ আপডেট’-এ যেতে হবে।

হালনাগাদের অপশন না থাকলে এরপর দেখে নিতে পারেন মাইক্রোসফটের মানদণ্ড অনুযায়ী আপনার কম্পিউটার উইন্ডোজ ১১-এর উপযুক্ত কি না। সে জন্য এখান থেকে মাইক্রোসফট পিসি হেলথ অ্যাপ নামিয়ে প্রোগ্রামটি চালিয়ে দেখে নিতে পারেন।

আপনার কম্পিউটার যদি উইন্ডোজ ১১-এর উপযুক্ত হয় এবং আপনি যদি স্বয়ংক্রিয় হালনাগাদের জন্য অপেক্ষা করতে না চান, তাহলে নিচের ধাপগুলো অনুসরণ করতে পারেন।

উইন্ডোজ ১১ সফটওয়্যার ডাউনলোড করার ওয়েবপেজে যান।

সহজে করতে চাইলে ‘উইন্ডোজ ১১ ইনস্টলেশন অ্যাসিস্ট্যান্ট’ ব্যবহার করুন। ‘ডাউনলোড নাউ’ অপশনে ক্লিক করে নির্দেশনা অনুসরণ করুন।

আবার চাইলে বুট করার উপযোগী ইউএসবি ড্রাইভ কিংবা ডিভিডি তৈরি করে নিতে পারেন। সে ক্ষেত্রে ‘ক্রিয়েট উইন্ডোজ ১১ ইনস্টলেশন মিডিয়া’য় ‘ডাউনলোড নাউ’ নির্বাচন করতে হবে।

শেষের অপশনটি সরাসরি ডিস্ক ইমেজ (আইএসও ফাইল) নামানোর জন্য।

প্রতিটি অপশনের বেলায় পর্দায় দেখানো নির্দেশনা ঠিকঠাক অনুসরণ করলে উইন্ডোজ ১১ ব্যবহার করতে পারার কথা।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

14 + 17 =

আরও পড়ুন