কক্সবাজারে অদ্ভুত শিশুর জন্ম

fec-image

কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে চার পা ও তিন হাতবিশিষ্ট এক শিশুর জন্ম হয়েছে। তবে জন্মের কয়েক ঘণ্টা পরই মারা গেছে শিশুটি।

মঙ্গলবার (২৬ জানুয়ারি) সকালে মহেশখালীর ইসরাত জাহান (২০) নামের এক গৃহিণী অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে শিশুটির জন্ম দেন। হাসপাতালের গাইনি বিশেষজ্ঞ ডা. শিরিন আক্তার জাহান অস্ত্রোপচারে ছিলেন।

শিশুর বাবা জহির বলেন, ‘গত ২৫ জানুয়ারি স্ত্রীর প্রসব বেদনা শুরু হলে প্রথমে মহেশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত সেবার জন্য তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে পাঠান। তবে আর্থিক অসচ্ছলতার কারণে তাকে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

মঙ্গলবার সকালে অপারেশনের মাধ্যমে স্ত্রীর ডেলিভারি হয়। অস্ত্রোপচারে শিশুটি পৃথিবীর আলো দেখলেও আশ্চর্যজনক যে আমার সন্তানটি চার পা ও তিন হাতবিশিষ্ট ছিল। অদ্ভুত শিশুটিকে আইসিইউতে রাখলেও দুপুরের দিকে পৃথিবীর মায়া ছেড়ে সে চলে যায়।’কক্সবাজার সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক রফিক উছ সালেহীন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

নিশ্চিত করে বলেন, ‘মঙ্গলবার সকালে শিশুটির জন্ম হয়। মাত্র ২৮ সপ্তাহ বয়সী হওয়ায় তাকে বাঁচানো যায়নি বলে ধারণা আমাদের।’

কক্সবাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের পেশ ইমাম হাফেজ সোলাইমান কাসেমী বলেন, ‘এটা আল্লাহর কুদরত। এটা দিয়ে আল্লাহ কোনো একটি শিক্ষার নিদর্শন দিয়েছেন নিশ্চয়ই।’

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: অদ্ভুত, কক্সবাজারে, শিশুর জন্ম
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twelve − two =

আরও পড়ুন