খাগড়াছড়ির ৮ নেতা আওয়ামীলীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন

Al Pic

মুজিবুর রহমান ভুইয়া :

আগামী সংসদ নির্বাচনে খাগড়াছড়িতে নৌকার কান্ডারী কে ? কার হাতে দলীয় প্রধান শেখ হাসিনা তুলে দেবেন নৌকা প্রতীক ? কার কাঁধে বর্তাবে জেলার উন্নয়নের দায়িত্ব ? এমন সব আলোচনা প্রধানমন্ত্রীর খাগড়াছড়ি সফরের পর থেকেই চলছে পুরোদমে। সকলের দৃষ্টি আটকে আছে বাংলাদেশ আওয়ামীলীলীগের সংসদীয় বোর্ড ও দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনার দিকে।

খাগড়াছড়ি জেলা জুড়ে যখন এমন আলোচনা তখন পার্বত্য খাগড়াছড়ির সংসদীয় আসনে দলীয় নমিনেশনের প্রত্যাশায় দলীয় মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগের ৮ নেতা।

আজ শনিবার সকালে আওয়ামীলীগের বঙ্গবন্ধু এভিনিউস্থ কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে খাগড়াছড়ি বর্তমান সাংসদ ও আভ্যন্তরীণ উদ্বাস্তু ও ভারত প্রত্যাগত শরনার্থী বিষয়ক টাস্কফোর্সের চেয়ারম্যান যতীন্দ্র লাল ত্রিপুরা’র পক্ষে মনোনয়নপত্র ক্রয় করেন তার ছেলে অপু ত্রিপুরা। এরপর খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা’র পক্ষে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি খোকনেশ্বর ত্রিপুরা। তারপর জেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের সচিব নব বিক্রম কিশোর ত্রিপরার বড় ভাই রণবিক্রম ত্রিপুরা’র পক্ষে সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য মো: নুর নবী ফরম সংগ্রহ করেন। মো: নুরুল আজম মনোনয়ন সংগ্রহ করেন পানছড়ি কলেজের অধ্যক্ষ ও জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি সমীর দত্ত চাকমা’র জন্য। খাগড়াছড়ি জেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও নবম সংসদ নির্বাচনে বিদ্রোহী প্রার্থী আলহাজ্ব মো: জাহেদুল আলম‘র পক্ষে সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক চন্দন কুমার দে মনোনয়নপত্র ক্রয় করেন।

এর বাইরেও খাগড়াছড়ি জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মংসুইপ্রু চৌধুরী অপু, খাগড়াছড়ি জেলা যুবলীগের সভাপতি যতন কুমার ত্রিপুরা, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য ও শিক্ষা বিভাগের আহ্বায়ক চাইথোঅং মারমা দলীয় মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন ।

উল্লেখ্য, দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থী বাছাইয়ের লক্ষ্যে গত ১০ নভেম্বর আওয়ামীলীগের দলীয় মনোনয়নপত্র বিক্রি শুরু হয়। গতকাল শুক্রবার একদিন বন্ধের পর আজ থেকে আবারো মনোনয়নপত্র বিক্রি শুরু হয়েছে। মনোনয়ন ফরম বিক্রি চলবে আগামীকাল ১৭ নভেম্বর পর্যন্ত।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × 1 =

আরও পড়ুন