ত্রাণ বিতরণে অনিয়ম হলে ব্যবস্থা নেয়া হবে: লে. কর্নেল কাজী কাওছার

fec-image

খাগড়াছড়ির গুইমারার সিন্ধুকছড়ি ১৪ ফিল্ড আর্টিলারি জোনের অধিনায়ক ও করোনা প্রতিরোধ কার্যক্রমে দায়িত্বে নিয়োজিত সেনা কর্মকর্তা লে. কর্নেল কাজী মো. কাওছার জাহান পিএসসি, জি বলেছেন, ত্রাণ বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

তিনি বলেন, আমাদের ত্রাণ সীমিত। কাজেই কেউ বাব বার পাবেন, আবার কেউ একবারও পাবে না এটা হতে পারে না। এছাড়া সকল সম্প্রদায়ের মানুষের মাঝে সম বন্টন হওয়াও বাঞ্চনীয়। তিনি আরও বলেন, বেসামরিক প্রশাসন জনপ্রতিনিধিদের নিয়ে ত্রাণ বিতরণের কাজ করছেন।

বুধবার (১৫ এপ্রিল) রামগড়ে করোনা প্রতিরোধ কার্যক্রম পরিদর্শনকালে স্থানীয় সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

সিন্ধুকছড়ি জোন অধিনায়ক আরও বলেন, সামরিক বাহিনী বেসামরিক প্রশাসনের সাথে যৌথভাবে পার্বত্য এলাকায় করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে নিরলসভাবে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। সামাজিক ও শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা, বিনা প্রয়োজনে ঘর থেকে বের না হওয়াসহ সচেতনামূলক নানা কার্যকক্রম পরিচালনা, কোয়ারেন্টাইন নিশ্চতকরণ, সমতল জেলা থেকে খাগড়াছড়িতে গমনাগমন নিয়ন্ত্রণেও সেনাবাহিনী সক্রিয়ভাবে কাজ করছে।

তিনি বলেন, সিন্ধুকছড়ি জোনের দায়িত্বপূর্ণ এলাকায় রাস্তাঘাটে জীবানুনাশক ওষুধ ছিটানো, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনা প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা, আইসোলেশন প্রস্তুতি পর্যবেক্ষন, চিকিৎসকদের কর্মস্থলে উপস্থিতি নিশ্চতকরণ ইত্যাদি কার্যক্রমও তদারকি করছে সেনাবাহিনী।

বুধবার তিনি রামগড়ে হাই স্কুল মাঠে শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে সাপ্তাহিক হাট বসার স্থান ও সোনাইপুল পুলিশ চেক পোস্ট পরিদর্শন করেন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে সিন্ধুকছড়ির সাব জোন কমান্ডার মেজর জুনায়েদ বিন কবির, জি, রামগড় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সজীব কান্তি রুদ্র, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ শামসুজ্জামান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

nineteen − fifteen =

আরও পড়ুন