উখিয়া উপজেলা আ’লীগের সম্পাদক অনুপ্রবেশকারী বললেন স্বয়ং সভাপতি!

fec-image

উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী দলে একজন অনুপ্রবেশকারী। জাতীয় পার্টির নেতার পুত্র ও সাবেক ছাত্র সমাজ নেতা প্রভাব খাটিয়ে জাহাঙ্গীর চৌধুরী আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদ দখল করেছেন। অনুপ্রবেশকারী জাহাঙ্গীর এখন উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগকে ধ্বংস করছেন বলে দাবি করেছেন উখিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হামিদুল হক চৌধুরী।

সিআইএন নামের একটি অনলাইন টেলিভিশনের স্বাক্ষাতকারে উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হামিদুল হক চৌধুরী দাবি করেন, উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী একজন অনুপ্রবেশকারী আওয়ামী লীগ। হামিদ চৌধুরী দাবি করেন একসময় জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী এরশাদের ছাত্রসমাজের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলো। জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী বা তার পরিবারের কেউ আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন না।

বর্তমান সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরীর বাবা নুরুল ইসলাম চৌধুরী ঠান্ডা মিয়া ছিলেন উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি। জাতীয় পার্টির মনোনয়নে তিনি উপজেলা চেয়ারম্যান হয়েছিলেন। ২০০১ সালের নির্বাচনে তার পরিবার বিএনপির প্রার্থী শাহাজাহান চৌধুরীর ধানের শীষের পক্ষে নির্বাচন করেছিলেন। ঐ সময় তারা বিভিন্ন জনসভায় ধানের শীষের পক্ষের প্রকাশ্যে বক্তব্য রেখেছিলেন।

উখিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান হামিদুল হক চৌধুরী জানান, অনুপ্রবেশকারী জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী এখন আসল রুপ ধারণ করেছে। তার কারণে দলের ত্যাগী নেতারা বঞ্চিত হচ্ছে। দলের পদ ও নেতাকর্মীদের ব্যবহার করে জাহাঙ্গীর চৌধুরী রোহিঙ্গা ক্যাম্পের এনজিওর কাজের মাধ্যমে কোটি কোটি টাকা উপার্জন করেছেন। কিন্তু যেই নেতাকর্মীদের তিনি ব্যবহার করেছেন তাদের ছিটেফোঁটোও দেয়নি বলে জানান হামিদুল হক চৌধুরী।

সাধারণ সম্পাদকের এ সকল বিষয়ে দলের সভানেত্রী বরাবর দুটি আবেদন করেছেন বলে ঐ সাক্ষাতকারে জানান হামিদুল হক চৌধুরী।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

thirteen − ten =

আরও পড়ুন